‘নদী ভাঙনের কারণে ৬টি গ্রাম ও চারটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান হুমকির মুখে’

কোম্পানীগঞ্জে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের প্রতিবাদে মানববন্ধন::

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার ডালারপার ও এর আশপাশ এলাকা থেকে জোরপূর্বক অবৈধভাবে ড্রেজার মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন করে ধলাই নদী ও ডালাই নদের ভাঙনের সৃষ্টি করার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছেন এলাকার ক্ষতিগ্রস্ত মানুষেরা।

গতকাল শুক্রবার সকালে ডালারপার এলাকায় এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়। মানববন্ধন কর্মসূচিতে উত্তর ডালারপার, ডালারপার, মেঘারগাঁও, মোস্তফা নগর, দক্ষিণ ডালারপারসহ অনন্ত ১০টি গ্রামের লোকজন অংশ নেন।

মানববন্ধন চলাকালে বক্তারা বলেন, একটি প্রভাবশালী মহল ডালারপার এলাকায় ইজারাকৃত বালু মহালের বাহিরে গিয়ে জোরপূর্বক অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করায় ২ নং পূর্ব ইসলামপুর ইউনিয়নের তিনটি ওয়ার্ডের ৬টি গ্রাম, ঢালারপার উচ্চবিদ্যালয়, কমিউনিটি ক্লিনিক, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ঢালারপার-মেঘারগাঁও দাখিল মাদ্রাসা, আরও একটি হাফিজিয়া মাদ্রাসা এখন নদী ভাঙনের চরম ঝুঁকির মধ্যে পড়েছে। তারা অভিযোগ করে বলেন, পুলিশ প্রশাসনের কিছু সদস্যকে মেনেজ করে এলাকার চিহিৃত বালুখোকোরা বালু উত্তোলনের কারণে এই এই এলাকাটিই এখন বিলিন হওয়ার পথে।

মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন ঢালারপার-মেঘারগাঁও দাখিল মাদ্রাসার সভাপতি আরিফুল হক সেন্টু। ২ নং পূর্ব ইসলামপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক এমএ মতিনের পরিচালনা এতে বক্তব্য রাখেন ২ নং পূর্ব ইসলামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. বাবুল মিয়া, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সহসভাপতি আবু বক্কর সিদ্দিক,

পূর্ব ইসলামপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মুল্লুক হোসেন হোসেন, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ডা. রফিকুল ইসলাম চৌধুরী, ঢালারপার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপি অ্যাডভোকেট ইসরাফিল আলী, বীর মক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাই,

২ নং পূর্ব ইসলামপুর ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি শান্তি মিয়া, উপজেলা যুবলীগের সদস্য তোফাজ্জল হোসেন, উপজেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি সিরাজুল ইসলাম ও আলী আকবর মেম্বার প্রমুখ।

 

 

 

 

—বিজ্ঞপ্তি

Loading...