মুজিব বর্ষের গৃহ বরাদ্ধে অনিয়ম দূর্নীতি মাধ্যমে তালিকা প্রণয়ন ও ঘর বরাদ্ধের প্রতিবাদে জৈন্তাপুরে মানববন্ধন

জৈন্তাপুর প্রতিনিধিঃঃ

সিলেটের জৈন্তাপুর উপজেলা প্রশাসন কর্তৃক গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার প্রকৃত ভূমিহীন ও ঘরহীন দুস্ত পঙ্গু গরিব লোকদের জন্য প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার উপহার স্বরূপ জৈন্তাপুরে ৩৩০টি পরিবারে মধ্যে ঘর নির্মাণ কার্যক্রম গ্রহন করে৷ তারই প্রেক্ষিতে জৈন্তাপুরে প্রথম ধাপে ১২০টি পরিবারকে ঘর বরাদ্ধ দেওয়া হবে৷ কিন্তু শুরু হতে ঘর বরাদ্ধে নানা অনিয়ম ও দূর্নীতি এবং চিকনাগুল এলাকায় গৃহ নির্মানে সরকারি নীতিমালা উপেক্ষা করে টিকাদার ইউপি সদস্য নজরুল ইসলামের মাধ্যমে অর্থ আদায় এবং নিম্ন মানের নির্মাণ সামগ্রী দিয়ে ঘর নির্মানের বিরুদ্ধে সচেতন মহল প্রতিবাদ করে৷ সকল কিছুর পরও উপজেলা ঘর নির্মাণ কমিটি অতি গেপনীয়তা বজায় রেখে ঘর নির্মাণ এবং ঘর বরাদ্ধে নিজ অফিসের কর্মকর্তা ও মালিদের মনোনিত আত্মিয় স্বজনদের নামে ঘর বরাদ্ধ করেন এমন অভিযোগ উঠে৷ বিষয়টি স্থানীয় সিলেট ৪ আসনের সংসদ সদস্য ও গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রনালয়ে মন্ত্রী ইমরান আহমদ এমপি কে অবহিত করা হয়৷ বিষয়টির সুরাহার জন্য মাননীয় মন্ত্রী মহোদয় উপজেলা চেয়ারম্যান ও জৈন্তাপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি কামাল আহমদকে সরজমিন তদন্ত করে তালিকায় অভিযুক্ত ২৩ জন ব্যক্তিদের নাম বাতিল করার জন্য মৌখিক নির্দেশ দেন৷ উপজেলা চেয়ারম্যান মন্ত্রীর নির্দেশে গত শুক্রবার সকাল ৭টা হতে সন্ধ্যা পর্যন্ত দিন ব্যাপী ঘরে ঘরে গিয়ে তালিকা যাচাই করে ২৩জন ব্যকবতির নাম বাতিলের সুপারিশ করেন ঘর বরাদ্ধ কমিটির কাছে৷ কিন্তু রহস্য জনক কারনে পাকাবাড়ী ঘর ব্যবসা বানিজ্য এবং জৈন্তাপুরে উপজেলার বাহিরে রংপুর জেলার বাসিন্ধার নামে ঘর বরাদ্ধ করেন ঘর বরাদ্ধ কমিটি৷ যার পরিপ্রেক্ষিতে আগামীকাল ২২জানুয়ারী গৃহহীনদের আয়োজনে জৈন্তাপুর উপজেলা সদরে বিকাল ৩টায় মানব বন্ধন কর্মসূচী পালনের ঘোষনা করা হয়েছে ৷ তাদের ন্যায্য দাবী আদায় ও প্রশাসনের অনিয়ম দূর্নীতির প্রতিবাদে মানব বন্ধন পালন করবে৷ মানব বন্ধন সফল করতে সামাজিক রাজনৈতিক মহলের অংশ গ্রহন সহ সার্বিক সহযেগিতা কামনা করছেন

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close