শাহপরাণে ছুরিকাঘাতে মৃত তরুণের লাশ উদ্ধার

সুরমা টাইমস ডেস্ক::

ঘর থেকে ডেকে নিয়ে যায় দুই বন্ধ, পাঁচ ঘন্টা পর মিললো লাশ সিলেট নগরের উপকণ্ঠের খাদিমে একটি লেকের পাশে ছুরিকাঘাতে মৃত তরুণের লাশ পাওয়া গেছে। তাকে জন্মদিনের অনুষ্ঠানের কথা বলে ঘর থেকে নিয়ে গিয়েছিলেন দুই বন্ধু। বুধবার (২০শে জানুয়ারি) সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ কমিশনার (গণমাধ্যম) বিএম আশরাফ উল্লাহ তাহের এ তথ্য জানিয়েছেন।

এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নাইমের এক বন্ধুসহ ৩/৪জনকে থানায় নিয়ে এসেছে শাহপরান থানা পুলিশ।

গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে খাদিম বিআইডিসি এলাকার কৃষি গবেষণা খামারের লেকের পাশ থেকে নাইম (২০) নামে ওই তরুণের লাশ উদ্ধার করে শাহপরাণ থানা পুলিশ। তার শরীরে একাদিক ছুরিকাঘাতের চিহ্ন পাওয়ার কথা জানিয়েছে পুলিশ।

বিএম আশরাফ উল্লাহ তাহের জানান, মঙ্গলবার দুপুর দেড়টা থেকে দুইটার মধ্যে নাইমের বন্ধু সবুজ ও রাব্বি তাকে জন্মদিনের অনুষ্ঠানে যাওয়ার জন্য মোবাইলে ফোন করে। একাধিকবার ফোন পাওয়ার পর সে দ্রুত ঘর হতে বের হওয়ার জন্য তার বোন রুজিকে তাড়াতাড়ি খাবার দিতে বলে। একপর্যায়ে সে খাবার না খেয়েই তাড়াহুড়ো করে ঘর হতে বেরিয়ে যায়।

তিনি জানান, গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে স্থানীয় এক অটোরিকশা চালকের কাছ থেকে খবর পেয়ে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে। পুলিশ ওই তরুণের প্যান্টের পকেট থেকে পাওয়া মোবাইল ফোনের মাধ্যমে তার আত্মীয়-স্বজনের সাথে যোগাযোগ করে বিষয়টি অবগত করেন। সংবাদ প্রাপ্ত হয়ে আত্মীয়-স্বজনরা সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে এসে মৃতদেহটি শনাক্ত করেন।

পরিবারের সদস্যদের বরাতদের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, খাদিম মোহাম্মদপুর এলাকার নিজামুদ্দিনের ছেলে নাইম পেশায় এসএস স্টিলের শ্রমিক। আনসার নামে এক আত্মীয়ের সাথে তিনি গ্রিল জানালার খুচরা কাজ করতেন।

শাহপরাণ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দ আনিসুর রহমান জানান, নাইম হত্যার ঘটনায় তার বন্ধু সবুজসহ ৩/৪ জনকে আমরা থানায় এনে জিজ্ঞাসাবাদ করছি।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close