লেবাননে দুই সপ্তাহের জরুরি অবস্থা জারি

সুরমা টাইমস ডেস্ক::

লেবাননের রাজধানী বৈরুতে ভয়াবহ বিস্ফোরণের পর শহরটিতে দুই সপ্তাহের জন্য রাষ্ট্রীয় জরুরি অবস্থা ঘোষণা করা হয়েছে। দেশটির প্রেসিডেন্ট মিশেল আউন এই জরুরি জারি ঘোষণা করেন।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বৈরুত বন্দরে একটি বিস্ফোরক দ্রব্যের গুদামের ভয়াবহ বিস্ফোরণ ঘটে। এরইমধ্যে মৃতের সংখ্যা ১০০ ছাড়িয়ে গেছে। আহত হয়েছে চার হাজারের বেশি মানুষ। মৃতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। লেবাননের শীর্ষ প্রতিরক্ষা পরিষদ বৈরুতকে দুর্যোগ কবলিত শহর বলে ঘোষণা করেছে।

বৈরুতের গভর্নর মারওয়ান অবুউদ জানিয়েছেন, ‘বিস্ফোরণে প্রায় ৩ লাখ মানুষ বাস্তুচ্যুত হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে অসংখ্য ঘরবাড়ি। কর্তৃপক্ষ তাদের আশ্রয়, খাদ্য এবং পানি সরবরাহে কাজ করছে। ফায়ার সার্ভিসের ১০ সদস্য নিহত হয়েছেন। ক্ষয়ক্ষতি ৩ থেকে ৫শ’ কোটি মার্কিন ডলার (প্রায় ৪৫ হাজার কোটি টাকা)। তার বেশিও হতে পারে।’

বিস্ফোরণের পর লেবাননের সর্বোচ্চ প্রতিরক্ষা পরিষদ প্রেসিডেন্ট মিশেল আউনের নেতৃত্বে জরুরি বৈঠকে বসে। বৈঠক শেষে এক বিবৃতির মাধ্যমে প্রেসিডেন্ট রাষ্ট্রীয় জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেন এবং ১০ হাজার কোটি লেবাননি পাউন্ড সাহায্য হিসেবে বরাদ্দ দিয়েছেন।

লেবাননের সর্বোচ্চ প্রতিরক্ষা পরিষদ একটি কমিটি তদন্ত গঠন করেছে। এ কমিটি আগামী পাঁচ দিনের মধ্যে তদন্ত রিপোর্ট পেশ করবে। তদন্তে যারা দোষী সাব্যস্ত হবেন তাদেরকে সর্বোচ্চ শাস্তি দেয়ার সুপারিশ করা হয়েছে।

সূত্র :— রয়টার্স, ইউএস নিউজ।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close