মোগলাবাজারে যুুবক খুনের ঘটনায় একজন আটক

সুরমা টাইমস ডেস্ক::

সিলেটের দক্ষিণ সুরমা উপজেলার মোগলাবাজার ইউপির সোনাপুর গ্রামে পূর্বশূত্রতার জেরে এক যুবককে পিঠিয়ে হত্যা করেছ প্রতিপক্ষ।নিহত যুবকের নাম রাহিদ মিয়া (২৪)। সে উপজেলার সোনাপুর গ্রামের ফজলু মিয়ার পুত্র।

নিহত ব্যক্তি একই গ্রামের ফজলু মিয়ার ছেলে রাহিত মিয়া (২২)। এ ঘটনায় একই গ্রামের চান মিয়ার পুত্র আতিক মিয়াকে মোগলাবাজার থানা পুলিশ আটক করেছে।

জানা যায় গত ৬ রমজানে সুনাপুর গ্রামে ফজলু মিয়া গংরা ওয়াজ মাহফিলকে কেন্দ্র করে একই গ্রামের চান মিয়ার পুত্র তুলা মিয়াকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে গুরুত্বর আহত করে। দীর্ঘ কয়েক সপ্তাহ তুলা মিয়া ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা নেয়। এই ঘটনায় তুলা মিয়ার পক্ষ থেকে ফজলু মিয়া গংদের আসামী করে মোগলাবাজার থানায় মামলা দায়ের করা হয়। মামলায় ফজলু মিয়া আটক হয়।

এই বিষয়কে কেন্দ্র করে ২৩শে জুলাই বৃহস্পতিবার ফজলু মিয়ার লোকজন তুলা মিয়ার গংদের উপর হুমকি ধামকি দিলে দুপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। এক পর্যায়ে ফজলু মিয়ার ছেলে রাহিত মিয়া গুরুত্বর আহত হলে সোনপুর গ্রাম থেকে নৌকা যোগে মোগলাবাজার আসার পথে মৃত্যুবরণ করে।

খবর পেয়ে মোগলাবাজার থানার ওসি ছাহাবুল ইসলাম ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করেন। পরে তার লাশ ময়না তদন্তের জন্য সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়।

এ ঘটনায় এজহার নামীয় আসমী আতিক মিয়াকে আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মোগলাবাজার থানার ওসি ছাহাবুল ইসলাম।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close