মানবিক সাহায্য নিয়ে বাঁচতে চায় ৪ সন্তানের বাবা আনিক

মানুষ মানুষের জন্য,জীবন জীবনের জন্য কথাটা চিরন্তন সত্য।যুগে যুগে এভাবেই একে অপরের বিপদে এগিয়ে আসে।সুনামগঞ্জ জেলার ছাতক উপজেলার বড়কাপন বানায়ত গ্রামের মোঃআনিক মিয়া দীর্ঘদিন যাবৎ মরণব্যাধি লিভার ক্যান্সারে আক্রান্ত।

এমনকি অবুঝ চারটি সন্তানের জনক তিনি।বর্তমানে মাথা রাখার শেষ সম্বল ভিটেমাটি বিক্রি করে নিজের জীবন বাঁচানোর যুদ্ধে তিন বছর থেকে মানবেতর জীবন অতিবাহিত করছেন।

গত কয়েকদিন পূর্বে সিলেটের বেশ কয়েকটি অনলাইন নিউজ ও লাইভে এসে মানুষের নিকট জীবন বাঁচাতে আকুতি মিনতি জানিয়েছিলেন। তারপর অনেক হৃদয়বান ব্যক্তি তাদের সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছিলেন। অনেকটা সুস্থ জীবন ফিরে পেয়েছেন অনিক।

অনিকের পারিবারিক আর্থিক অবস্থা এতোটাই খারাপ অর্থের অভাবে ঠিক মতো চিকিৎসা ও ঔষধ ক্রয় করাও সম্ভব হয় না। এখনো সুস্থ হতে পারেন কিন্তুু এই ব্যয় বহুল চিকিৎসা করানোর সামর্থ তার পরিবারের নেই। যার প্রভাবে লিভারে ক্যান্সারের পজিশন ৯%থেকে বেড়ে ২৭%- এ দাঁড়িয়েছে।

যার ফলে দিনেদিনে মৃত্যুর দিকে এগিয়ে যাচ্ছে এই অসুস্থ ব্যক্তির জীবন। এই অসুস্থ ব্যক্তিটির পাশে মানবিক সাহায্য দিয়ে এগিয়ে এসেছিলেন জগন্নাথপুরের লন্ডন প্রবাসী আবু ইয়াসিন সুৃমন।উনার মানবিক সাহায্যে অসুস্থ অনিক অনেকটা আশার আলো খুঁজে পেয়েছিলেন।

জীবন বাঁচাতে সেই লন্ডন প্রবাসীর সহায়তা নিয়ে চিকিৎসার জন্য ভর্তিরও হয়েছিলেন ঢাকা শেখ মুজিব মেডিকেলে।লন্ডন প্রবাসীর মতো একই ভাবে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছিলেন সিলেটের সহকারী ডি.আই.জি আবদুল আহাদ মহোদয় ও সুনামগঞ্জের জেলা প্রশাসক মহোদয়।তারা দুই জন সব সময় অসুস্থ অনিকের পাশে ছায়ার মতো দাঁড়িয়ে ছিলেন।

সবার মানবিক সাহায্য ও অক্লান্ত পরিশ্রমে অনিক ৮১% ক্যান্সার মুক্ত ছিলেন।চিকিৎসকরা ও বলেছিলেন যথাসময়ে যদি বাকি চিকিৎসা করানো হয় তাহলে অসুস্থ অনিক ফিরে পাবে তার সুস্থ জীবন।

এখন অসুস্থ অনিকের দুটি কেমো প্রয়োজন যার খরচ প্রায় ১৬০০০০/= হাজার টাকা।এই বিশাল অংকের ব্যয়ভার বহন করা অনিকের পরিবারের পক্ষে সম্ভব না।তাই আসুন এই অসুস্থ ব্যক্তিটির পরিবারের কথা চিন্তা করে যার কতোটুকু সামর্থ তা দিয়ে মানবিক সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেই।হয়তো এই অল্প একটু সাহায্যের কারণে একজন লোক পৃথিবীতে বেঁচে থাকতে পারবে সেই সাথে তার পরিবার আবার আশার আলো খুঁজে পাবে।

আনিককে বাঁচাতে মানবিক সাহায্য করতে বিকাশ করুন (01785874550 Personal), এছাড়াও ব্যাংক একাউন্ট নং-5902201026473, মোঃ আনিক মিয়া, সোনালী ব্যাংক ছাতক শাখা।এই একাউন্ট নম্বরে পাঠিয়ে দিন আপনাদের মানবিক সাহায্যের হাত,বাঁচতে সহযোগিতা করুন অনিক ও তার পরিবারকে।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close