বিশ্বনাথ ও ওসমানীনগরে ১ লক্ষ টাকা অনুদান দিলেন শফিক চৌধুরী

সুরমা টাইমস ডেস্ক::

করোনাভাইরাসের প্রকোপ বৃদ্ধি পাওয়ায় দেশে বেড়েছে অঘোষিত লকডাউনের মেয়াদও। এই পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে কবে তা এখনই বলা যাচ্ছে না। এই অবস্থায় বিপদে পড়েছেন খেটে-খাওয়া ও শ্রমজীবী মানুষেরা। সিলেটের বিশ্বনাথ ও ওসমানীনগর উপজেলার সংকটাপন্ন সেই মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে আওয়ামী লীগ এবং অঙ্গসহযোগী সংগঠন। আর এই উদ্যোগে সম্পৃক্ত হয়েছেন সিলেট-২ আসনের সাবেক সাংসদ ও জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান চৌধুরী। এছাড়া অসহায় ও দুস্থ মানুষের পাশে দাঁড়াতে দলীয় নেতাকর্মিসহ এলাকার বিত্তবানদের বিশেষ করে প্রবাসীদের অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি।

এই দুই উপজেলায় ত্রাণ সরবরাহের জন্য তিনি ৫০ হাজার টাকা করে মোট ১ লক্ষ টাকা অনুদান প্রদান করেছেন। বর্তমানে যুক্তরাজ্যে অবস্থানরত শফিকুর রহমান চৌধুরী তাঁর এই সহযোগিতা কার্যক্রম অব্যাহত রাখবেন বলে জানিয়েছেন।

তিনি জানিয়েছেন, বৈশ্বিক সংকটকালীন এই পরিস্থিতিতে তিনি দেশে অবস্থানকালীন অসহায় মানুষের পাশে থেকেছেন, তাদেরকে সহযোগিতা করেছেন। করোনাভাইরাস সম্পর্কে মানুষকে সচেতন করতে তিনি সিলেট জেলার বিভিন্ন স্থানে সশরীরে প্রচারণা চালিয়ে গেছেন। পরবর্তীতে পারিবারিক অত্যন্ত জরুরি প্রয়োজনে যুক্তরাজ্যে যেতে হয়েছে। যুক্তরাজ্যে থেকেও তিনি প্রতিনিয়ত সিলেটবাসীর খবরাখবর নিচ্ছেন । বিশেষ করে নিজ নির্বাচনী এলাকা সিলেট-২ আসনের অসহায় জনগণের পাশে থাকতে আওয়ামী লীগ এবং অঙ্গসহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের আহবান জানিয়েছেন। একইসাথে বিশ্বনাথ ও ওসমানীনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রমে সম্পৃক্ত হতে এক লক্ষ টাকা প্রদান করেছেন। এই ধরণের সহযোগিতা কার্যক্রম তিনি চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন।

তিনি জানান, আমি খুব দ্রæত দেশে ফিরে আসার চেষ্টা করছি। প্রতিদিন সরকারি প্রশাসন এবং দলীয় নেতৃবৃন্দের সাথে যোগাযোগ করে যথাসাধ্য সহযোগিতার চেষ্টা করছি। আমি দলীয় নেতাকর্মীদের সাধ্যমতো অসহায় মানুষকে সাহায্য করার জন্য অনুরোধ জানাই।

তিনি সিলেটবাসীর প্রতি বিনীত অনুরোধ জানিয়ে বলেছেন, করোনা ভাইরাস বিশ্বের অন্য দেশের মতো বাংলাদেশেও ধীরে ধীরে তার বিস্তার বৃদ্ধি করছে।  সারাবিশ্ব করোনাভাইরাসের সাথে এক মহাযুদ্ধে সামিল হয়েছে। এই শত্রুর বিরুদ্ধে লড়ার কোনো অস্ত্র বিশ্বের কাছে নেই। তাই অসহায় কাল পার করছে মানবজাতি। আমাদের পারস্পরিক বিচ্ছিন্নতাই করোনাভাইরাস প্রতিরোধের একমাত্র যুদ্ধ ও অস্ত্র। তাই সবাইকে এই যুদ্ধের নিয়ম মেনে চলতে হবে। সচেতন হলেই এ যুদ্ধে জয় সম্ভব।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close