২৬ মার্চ থেকে ৪ এপ্রিল পর্যন্ত অফিস-আদালত বন্ধ

নভেল করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) বিস্তার ঠেকাতে আগামী ২৬ মার্চ থেকে ৪ এপ্রিল পর্যন্ত সরকারের অফিস-আদালত বন্ধ থাকবে। এ সময় পুলিশ ও হাসপাতাল ছাড়া সব ধরনের সরকারি সেবা বন্ধ থাকবে। কাঁচাবাজার, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ও হাসপাতালসহ জরুরি সেবা বিভাগগুলো এই ঘোষণার আওতায় থাকবে না।

সোমবার মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এই ঘোষণা দেন।সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, আগামী ২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসের ছুটি রয়েছে। এই দিন ছাড়াও ২৭ ও ২৮ মার্চ সাপ্তাহিক ছুটি রয়েছে। এই ছুটিগুলো ছাড়া আগামী ২৯ মার্চ থেকে ২ এপ্রিল পর্যন্ত ছুটি থাকবে। এরসঙ্গে আরও যোগ হবে ৩ ও ৪ এপ্রিলে সাপ্তাহিক ছুটি।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব জানান, মঙ্গলবার থেকে বেসামরিক প্রশাসনকে সহায়তা করবে সশস্ত্র বাহিনী। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার জন্য এ সহায়তা করবে সশস্ত্র বাহিনী।সংবাদ সম্মেলনে মুখ্য সচিব আহমেদ কায়কাউস দেশে নভেল করোনাভাইরাস মহামারি ঠেকাতে সরকারের নানা কার্যক্রম তুলে ধরে বলেন, এই পরিস্থিতিতে সবাই সম্মিলিতভাবে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করলে সঙ্কট মোকাবেলা করা যাবে।

কোভিড-১৯ রোগে বাংলাদেশে ৩৩ জন আক্রান্ত হয়েছেন, মারা গেছেন তিনজন; সুস্থ হয়েছেন ৫ জন।

এরআগে ৩১ মার্চ পর্যন্ত সকল স্কুল কলেজ বন্ধ ঘোষণা করা হয়। উচ্চ মাধ্যমিক ও সমমানের পরীক্ষা স্থগিত করা হয়। পহেলা এপ্রিল থেকে শুরু হওয়ার কথা উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা। বাংলাদেশের সকল দোকান, বিপণি বিতান ২৫ মার্চ থেকে বন্ধ করার দেয়ার ঘোষণা ইতোমধ্যেই হয়েছে।

Loading...