‘গালে চড় মারা বেঠিক আর নিতম্বে চড় মারা ঠিক?’

সুরমা টাইমস ডেস্ক ::

‘গালে চড় মারা বেঠিক আর নিতম্বে চড় মারা ঠিক? এটা কেমন। গালে চড় বেশি গুরুত্ব কেন পাবে’? টুইটারে এই প্রশ্নের জেরে নতুন বিতর্কে রঙ্গোলি চান্দেল। কঙ্গনার ব্যক্তিগত জীবনের কথা ফাঁস করে অভিনেত্রীর রোষের মুখে বড়বৈন।

টুইটারে বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য সবসময়ই আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে থাকেন কঙ্গনা রানাওয়াতের বোন ম্যানেজার রঙ্গোলি চান্দেল। বলিউডের ঠোঁটকাটা ব্যক্তিত্বদের মধ্যে একদম ওপরের সারিতেই রয়েছে রঙ্গোলির নাম। তবে এবার টুইটারে যৌন নির্যাতন এবং বিডিএসএম-নিয়ে নতুন বিতর্ক তৈরি করলো রঙ্গোলির টুইট। ঘটনার সূত্রপাত আন্তর্জাতিক নারী দিবসের দিন রঙ্গোলির ‘থাপ্পড়’ কেন্দ্রীক এক টুইটকে ঘিরে। 

তাপসী পান্নুর এই ছবি সম্পর্কে নিজের মত জানাতে গিয়ে রঙ্গোলি বলেন, ‘আমার পার্টনার আমাকে চড় মারলে আমি সাময়িকভাবে তার থেকে দূরে চলে যাব, তাকে হয়ত বাড়ির বাইরে বার করে দেব কিছু মাস বা বছরের জন্য। কিন্তু সারাজীবনের জন্য তাঁকে আমি ছেড়ে দেবো না যদি সে নিজের ভুল বুঝে ক্ষমা চেয়ে নেয়’। এরপর তিনি লেখেন, এই নিয়ে নাকি বোন কঙ্গনার সঙ্গেও তিনি আলোচনা করেছেন। তাতে কঙ্গনা জানিয়েছেন, ‘কেউ আমাকে চড় মারলে আমি তাকে ধ্বংস করে দেবো। কিন্তু যদি কেউ তাকে নিতম্বে চড় মারে তাহলে সেটা ওর ভালো লাগে!’ 

এরপর থেমে থাকেননি রঙ্গোলি। তিনি লেখেন, ‘বন্ধুরা আমি তোমাদের কাছে জানতে চাই গালে চড় মারা বেঠিক আর নিতম্বে চড় মারা ঠিক? এটা কেমন। গালে চড় বেশি গুরুত্ব কেন পাবে’?

রঙ্গোলির এই নিতম্বে চড় মারা শব্দটাই ভালোভাবে নেননি নেটিজেনরা। পাশাপাশি এক সংবাদমাধ্যম এই বিষয় নিয়ে রঙ্গোলির উদ্দেশে এক খোলা চিঠি লিখে বসে। তাঁরা জানায়, অনুমতিটাই হল শেষ কথা। মেয়েটি কোন বিষয়ে সহমত পোষণ করছে তার উপরই নির্ভর করে কোনটা সঠিক আর কোনটা বেঠিক। 

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close