মোগলাবাজার থানা পুলিশের অভিযানে ০২ কুখ্যাত ছিনতাইকারীসহ ০৩ জন আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক :: সিলেট নগরীর বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে ৩ জন ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রবিবার রাত ২টার দিকে তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তায় এই ছিতাইকারীদের অবস্থান সনাক্ত করে তাদের গ্রেফতার করতে সক্ষম হয় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

জানা গেছে, গত ২১শে জানুয়ারি একটি সিএনজি অটোরিক্সাযোগে বিয়ানীবাজার যাচ্চিলেন গুলশানা মরিয়ম নামের এক মহিলা। বিয়ানীবাজার যাওয়ার পথে মোগলাবাজার থানাধীন গোটাটিকর সুন্দরবন কমিউনিটি সেন্টারের উত্তরে সিলেট জকিগঞ্জ রোডে ছিনতাইকারীরা মোটর সাইকেল যোগে গুলশানারা মরিয়মের হাতের মধ্যে ভ্যানেটি ব্যাগের ভিতরে থাকা ০৫টি স্বর্ণের আংটি, ১টি গলার স্বর্ণের চেইন, ০২টি হাতের স্বর্ণের বালা, ১ জোড়া স্বর্ণের কানের দুল সহ সর্ব মোট ওজন ০৮ ভরি মূল্য অনুমান ৪,০০,০০০/-, স্যামসাং জে-৩ ও নোকিয়া মডেলের ০২টি মোবাইল সহ ব্যাগটি ছিনতাইকারীরা ছিনাইয়া নিয়া দ্রুত ঘটনাস্থল হইতে চলিয়া যায়। শুলশানা মরিয়ম (৬০) এর সাথে থাকা তাহার ছেলে নজরুল ইসলাম (৩২) উক্ত বিষয়ে বাদী হয়ে ১। জুয়েল (১৯), পিতা-মৃত শমসু মিয়া, ২। রানা (৩৫), পিতা-মৃত আঃ মতিন, ৩। জাওয়াদ (২৭), পিতা-রিয়াজ মিয়া@ রিয়াজ ডাকাত, সর্ব সাং- গঙ্গানগর ( হবিনন্দী), থানা- মোগলাবাজার জেলা সিলেটদের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এর প্রেক্ষিতে মোগলাবাজার থানার মামলা নং-০৯/০৯ তারিখ-২২/০১/২০২০খ্রিঃ ধারা-৩৯২ পেনাল কোড রুজু করা হয়।

যেভাবে উদঘাটিত হলো : –
গত ১৫/০২/২০২০ইং তারিখ উপ-পুলিশ কমিশনার (দক্ষিণ), জনাব মোহাঃ সোহেল রেজা, পিপিএম এসএমপি, সিলেট, অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (অপরাধ-দক্ষিণ), জনাব মাহফুজা আক্তার শিমুল, এসএমপি, সিলেটদের দিক নির্দেশনায় মোগলাবাজার থানার অফিসার ইনচার্জ জনাব আখতার হোসেন এর নেতৃত্বে মোগলাবাজার থানার এসআই(নিঃ)/দীপন চন্দ্র সরকার, এসআই(নিঃ)/রাজীব কুমার রায় সহ অফিসার ও ফোর্সগণ তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় অপরাধীদের অবস্থান সনাক্ত করেন এবং অফিসার ইনচার্জ আখতার হোসেন এর নেতৃত্বে সঙ্গীয় অফিসার এসআই(নিঃ)/দীপন চন্দ্র সরকার, এসআই(নিঃ)/রাজীব কুমার রায় সহ একটি চৌকস টিম সিলেট শহরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান পরিচালনা করিয়া মোগলাবাজার থানাধীন গোটাটিকর এলাকা হইতে ছিনতাইকারী ১। সোয়েব আহমদ নয়ন (২৬), পিতা-মৃত আব্দুস ছাত্তার, সাং-কল্লোগ্রাম, ২। মোঃ ছায়েদুল ইসলাম আকাশ (১৮), পিতা-খায়রুল ইসলাম, সাং-সুরমা গেইট (দত্তগ্রাম), উভয় থানা-শাহপরান (রহঃ), জেলা-সিলেটদ্বয়কে আটক করা হয়। তাদের মধ্যে আটককৃত সোয়েব আহমদ নয়ন এর সাথে ১০ (দশ) পিস ইয়াবা ট্যাবলেটও পাওয়া যায়। আটককৃত সোয়েব আহমদ নয়ন ও মোঃ ছায়েদুল ইসলাম আকাশকে জিজ্ঞাসাবাদে তাহারা উক্ত ছিনতাই এর ঘটনা স্বীকার করে। তাদের দেওয়া তথ্য মতে শাহপরান (রহঃ) থানাধীন কল্লোগ্রাম সাকিনে সোয়েব আহমদ নয়ন এর বসত ঘর হইতে লুন্ঠিত ০১টি মোবাইল উদ্ধার করা হয়। অতঃপর তাদের জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় তাহারা লুন্ঠিত স্বর্ণালংকার জনৈক আলাল হোসেন (২৭), পিতা-মৃত লোকমান মিয়া, সাং-কুশিঘাট, থানা-শাহপরান (রহঃ), জেলা-সিলেট এর সহায়তায় সিলেট লাল দিঘীর পাড় এলাকায় বিক্রয় করে। তাহাদের দেওয়া তথ্য মতে জনৈক আলাল আহমদকে জিজ্ঞাসাবাদ করিলে সেও লুন্ঠিত মালামাল উক্ত সোয়েব আহমদ নয়ন ও মোঃ ছায়েদুল ইসলাম আকাশ দ্বয়ের নিকট হইতে নিয়া বিক্রয়ের কথা স্বীকার করে। মামলার ঘটনায় জনৈক আলাল হোসেন অত্র মামলার ঘটনার সাথে জড়িয়ে থাকায় তাহাকেও অত্র মামলায় গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত ১। সোয়েব আহমদ নয়ন, ২। মোঃ ছায়েদুল ইসলাম আকাশ, ৩। আলাল হোসেনদেরকে বিধি মোতাবেক বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করা হয়। আটককৃত সোয়েব আহমদ নয়ন এর নিকট অবৈধ মাদকদ্রব্য ইয়াবা ট্যাবলেট পাওয়ায় তাহার বিরুদ্ধে মোগলাবাজার থানার মামলা নং-০৯, তারিখ-১৬/০২/২০২০খ্রিঃ ধারা-২০১৮ সালের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনের ৩৬(১) এর ১০(ক) রুজু করা হয়। ছিনতাইয়ে লুন্ঠিত মালামাল উদ্ধারে অভিযান চলমান।

এব্যাপারে মোগলাবাজার থানার অফিসার ইনচার্জ আখতার হোসেন সুরমা টাইমসকে জানান তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় অপরাধীদের অবস্থান সনাক্ত করে এবং সিলেট শহরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে ছিনতাইকারী গ্রেফতার করা হয়েছে। তাদের নিকট থেকে ছিনতাইকাজে ব্যবহৃত লাল রংয়ের একটি পালসার মোটরসাইকেলও উদ্ধার করে পুলিশ।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close