সিলেটে ডিবি পুলিশের অভিযানে গাজাসহ ১২ টি মামলার আসামি আটক

স্টাফ রিপোর্টার :: সিলেট জেলার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন পিপিএম এর নির্দেশনায় চলমান মাদক বিরোধী অভিযানে জেলা গোয়েন্দা শাখা (উত্তর) এর এসআই প্রলয় রায় এর নেতৃত্বে ডিবি টিম গত মঙ্গলবার রাত সাড়ে এগার ঘটিকার সময় জৈন্তাপুর থানাধীন হেমু মাঝপাড়া এলাকা হতে স্থানীয় জনগনের সহায়তায় গাজা সহ সুজন মিয়া (৪৫) নামের এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে। সে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার কালিবাড়ি গ্রামের মৃত তোতা মিয়ার ছেলে।

তার নিকট থেকে পুলিশ আধা কেজি গাজা উদ্ধার করেছে। উল্লেখ্য গত মঙ্গলবার রাত ১১ ঘটিকার সময় গ্রেফতারকৃত সুজন মিয়া সন্দেহজনকভাবে জৈন্তাপুর থানাধীন হেমু মাঝপাড়া এলাকায় রইছ উদ্দিনের বাড়ির পাশে ঘুরাঘুরি করলে স্থানীয় জনগন তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে অসংলগ্ন কথাবার্তা বলে এক পর্যায়ে তার হাতে থাকা ব্যাগে গাঁজার অস্থিত্ব পাওয়া গেলে উৎসুক জনতা তাকে এলোপাতারি মারধর করে। সংবাদ পেয়ে আশপাশ এলাকায় বিশেষ অভিযানে থাকা ডিবি টিম ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে গাজা সহ সুজন মিয়াকে উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা করান। গ্রেফতারকৃত সুজন মিয়া কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক।এ ঘটনায় এসাই প্রলয় রায় বাদী হয়ে জৈন্তাপুর থানায় মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা দায়ের করেছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জেলা গোয়েন্দা শাখা (উত্তর) এর অফিসার ইনচার্জ সাইফুল আলম জানান থানার রেকর্ড পত্র পর্যালোচনায় সুজন মিয়ার পূর্ব ইতিহাস ভাল নয়। তার বিরুদ্ধে অস্ত্র,অপহরন, চাঁদাবাজি, প্রতারনা, পুলিশ আক্রান্ত সহ বিভিন্ন অভিযোগের ১২ টি মামলা বিজ্ঞ আদালতে বিচারধীন রয়েছে। তাকে কোর্টে সোপর্দ করা হয়েছে।

Sharing is caring!

Loading...
Open