ভারত হিন্দুদের, দেশের ১৩০ কোটি মানুষই হিন্দু : আরএসএস

সুরমা টাইমস ডেস্ক:: ভারতের ১৩০ কোটি মানুষই হিন্দু, রোববার (১৯জানুয়ারি) রাষ্ট্রীয় সয়ংসেবক সঙ্ঘের একটি অনুষ্ঠানে উত্তরপ্রদেশের মোরাদাবাদে এমনই বিতর্কিত মন্তব্য করলেন মোহন ভগবত। যদিও তার পরই হিন্দুত্ব বলতে তিনি আসলে কী বোঝাতে চেয়েছেন, তারও ব্যাখ্যা দিয়েছেন।

মোরাদাবাদে গত চারদিন ধরেই আরএসএসের কর্মীদের নিয়ে একটি অনুষ্ঠান চলছে। সেই উপলক্ষেই তিনি রোববার সেখানে বক্তৃতা দেন। তিনি বলেন, “আমরা মনে করি আমাদের দেশের ১৩০ কোটি মানুষই হিন্দু। আর যখন কোনও আরএসএস কর্মী বলেন যে, এই দেশ হিন্দুদের এবং তার ১৩০ কোটি মানুষ হিন্দু, এর অর্থ এই নয় যে আমরা কারও ধর্ম, ভাষা, জাতি বদলাতে চাইছি… আমরা সংবিধানে ভরসা রাখি। সংবিধান ছাড়া আর কোনও ক্ষমতার কেন্দ্র তৈরি হোক, আমরা চাই না।”

এর পরই হিন্দুত্বের ব্যাখ্যা দিতে গিয়ে তিনি বলেন, “সংবিধান আমাদের আবেগপূর্ণ হতে বলে। কিন্তু কী এই আবেগ? আবেগ হল- এই দেশ আমাদের, আমরা আমাদের মহান পূর্বপূরুষদের বংশধর এবং আমাদের মধ্যে অনেক বৈচিত্র থাকা সত্ত্বেও একসঙ্গে থাকতে হবে। আর এটাই আমাদের কাছে হিন্দুত্ব।”

এর আগের দিন, শনিবার এই অনুষ্ঠানেই আরএসএস প্রধান মোহন ভগবত জানিয়েছিলেন, আরএসএসের সঙ্গে কোনওরকম রাজনীতির যোগ নেই। বিজেপির নিয়ন্ত্রক বলে পরিচিত হলেও, আরএসএস কোনওভাবেই রাজনৈতিক দল বিজেপির উপর প্রভাব বিস্তার করে না।

দেশের সংস্কৃতি, মানবিক মূল্যবোধ এবং নীতির উন্নয়ন ঘটানোই আরএসএসের একমাত্র কাজ।

Sharing is caring!

Loading...
Open