দক্ষিণ সুরমায় ট্রাফিক টি আই শরীফের অবৈধ টমটম বাণিজ্য

নিজস্ব প্রতিবেদক :: অবৈধ ইজিবাইক টমটম চলাচলে প্রশাসনের পক্ষ থেকে নিষেধাজ্ঞা থাকা স্বত্বেও দক্ষিণ সুরমা এলাকায় ট্রাফিকের দায়িত্বে থাকা টি আই শরীফ উদ্দীনকে ম্যানেজ করে দেদারছে চলছে ইজিবাইক টমটম।

এতে করে দক্ষিণ সুরমার প্রতিটি গুরুত্বপূর্ণ স্থানে প্রতিনিয়ত সৃষ্টি হচ্ছে যানজট। পাপ্পু ও জগলু নামের দুই ব্যক্তির তত্বাবধানে চন্ডিপুল থেকে ক্বীনব্রীজের মুখ পর্যন্ত অবৈধ ইজিবাইক টমটম চলাচল করছে।

ট্রাফিক পুলিশকে ম্যানেজ করার জন্য প্রতিটি ইজিবাইক হতে তারা প্রতিদিন ১৩০ টাকা করে আদায় করে নিচ্ছে বলে জানা যায়।

চন্ডিপুল এলাকার ছত্তার মিয়া নামে এক ইজিবাইক টমটমের চালকের সাথে কথা বললে তিনি জানান, আমরা প্রতিদিন পাপ্পু ও জগলু ভাইকে ১৩০ টাকা করে দিয়ে চন্ডিপুল হতে ক্বীনব্রীজের মুখ পর্যন্ত যাত্রী নিয়ে যাই। চন্ডিপুল হতে ক্বীনব্রীজের মুখ পর্যন্ত চলাচলের জন্য প্রতিদিন টিআই শরীফকে ৬শ টাকা করে দিতে হয়।

এদিকে শিববাড়ী থেকে হুমায়ুন রশিদ চত্বর পর্যন্ত টমটম চলাচলের জন্য টিআই শরীফ উদ্দিনকে প্রতিদিন ৩শ টাকা করে দিতে হয় বলে জানান শিববাড়ীর এক টমটম চালক কামাল মিয়া। শিববাড়ী থেকে হুমায়ুন রশিদ চত্বরের টাকা তুলেন খলিল নামে এক ব্যক্তি। তিনি আমাদের প্রতিটি গাড়ী থেকে ১শ টাকা করে আদায় করে নেন। কোনদিন টাকা দিতে দেরী হলে হঠাৎ ২/১টি টমটম রেকার করা হয়। কদমতলী ওভারব্রীজের পয়েন্ট থেকে আলমপুর পর্যন্ত টমটম চলাচলে মাছুম নামের এক টমটম চালক প্রতিটি টমটম থেকে ১শ টাকা করে আদায় করে নেন এবং এর জন্য টিআই শরীফ উদ্দিনকে প্রতিদিন ৩শ টাকা করে দিতে হয় বলে জানান নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক টমটম চালক।

এব্যাপারে ট্রাফিক টিআই শরীফ উদ্দিনের মোবাইলে একাধিকবার ফোন দিলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

এ ব্যাপারে এসএমপি’র উপ-পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) নিকোলিন চাকমার সাথে কথা বললে তিনি জানান, অবৈধ টমটম চলতে পারেনা। যারা এগুলোর সাথে জড়িত রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে বিহীত ব্যবস্থা গ্রহণ করব। 

গত ১৫/২০ দিন আগে ২৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র-১ তৌফিক বক্স লিপনের মটরসাইকেলে একটি ইজিবাইক টমটম ধাক্কা দিলে মটরসাইকেলটি দুমড়ে মুচড়ে যায় এবং কাউন্সিলর সামান্য আহত হন।

এ ব্যাপারে স্থানীয় এলাকাবাসীর সাথে কথা বললে তারা জানান, অবৈধ টমটম কিছু পুলিশকে ম্যানেজ করে চালাচ্ছে, এতে করে প্রায় সময় দূর্ঘটনা ঘটছে আর যানজট তো লেগেই আছে।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close