ইরাকের বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসে রকেট হামলা

ইরাকের রাজধানী বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসে রকেট হামলার খবর পাওয়া গেছে। নিরাপত্তা সূত্রকে উদ্ধৃত করে তুর্কি বার্তা সংস্থা আনাদোলু এজেন্সি জানায়, শনিবার সন্ধ্যার দিকে এই হামলা চালানো হয়। এছাড়া উত্তরাঞ্চলীয় এক প্রদেশে মার্কিন সেনা অবস্থান করা এক বিমান ঘাটিতেও রকেট হামলার খবর পাওয়া গেছে।

মার্কিন বিমান হামলায় দেশের সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ জেনারেল কাসেম সোলাইমানিকে হারিয়ে ক্ষোভে ফুঁসছে ইরান। ‘উপযুক্ত সময়ে, যথাস্থানে’ এই হত্যাকাণ্ডের প্রতিশোধ নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে তারা। এরইমধ্যে ওই অঞ্চলে অতিরিক্ত তিন হাজার সেনা পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছে মার্কিন প্রতিরক্ষা দফতর পেন্টাগন। সোলাইমানিকে হত্যার একদিনের মামলায় ইরাকে নতুন করে ইরানি-সমর্থনপুষ্ট বাহিনীর ওপর আবারও হামলা চালিয়েছে তারা।

এরইমধ্যে মার্কিন দূতাবাসে হামলার কথা জানা গেল। তবে এখন পর্যন্ত কোনও হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। ইরাকের সামরিক বাহিনী বলে এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, বাগদাদে মার্কিন দূতাবাসের কাছে দুটি রকেট ছোড়া হয়েছে। এছাড়া বাগদাদের উত্তরে সালাহউদ্দীন প্রদেশে মার্কিন সেনাদের বালাদ বিমানঘাঁটিতে তিনটি রকেট ছোড়া হয়েছে।

এখন পর্যন্ত কেউ এই হামলার দায় স্বীকার করেনি।

শুক্রবার ইরাকের বাগদাদ বিমানবন্দরে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্দেশে রকেট হামলা চালিয়ে সামরিক কমান্ডার জেনারেল কাসেম সোলাইমানিকে হত্যা করা হয়। প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প দাবি করেন, ৬২ বছর বয়সী জেনারেল সোলাইমানি মার্কিন কূটনীতিক ও নাগরিকদের ওপর শিগগিরই মারাত্মক হামলা চালানোর পরিকল্পনা করছিলেন। এরপর থেকেই পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে। শঙ্কা দেখা দিয়েছে মধ্যপ্রাচ্যে আরেকটি যুদ্ধের।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close