গোয়াইনঘাটে স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যার দায়ে স্বামী আটক

স্টাফ রিপোর্টার ::সিলেটের গোয়াইনঘাটের ৩নং পূর্ব জাফলং ইউনিয়নে স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগে স্বামীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। নিহত গৃহবধূর নাম মুন্নি আক্তার (২৩)। সে উপজেলার ১নং রুস্তমপুর ইউনিয়নের লক্ষণছড়া গ্রামের মৃত ফজলুল করিমের মেয়ে।

শনিবার (৭ ডিসেম্বর) ভোর রাতে নয়াগাঙ্গেরপাড় গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। হত্যার অভিযোগে অভিযুক্ত স্বামীর নাম শফিক মিয়া। তিনি পূর্ব জাফলং নয়াগাঙ্গেরপাড়ের গেদা মিয়ার ছেলে।

পুলিশ এবং পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, দেড় বছর আগে নয়াগাঙ্গেরপাড়ের গেদা মিয়ার ছেলে শফিক মিয়ার সাথে বিয়ে হয় নিহত মুন্নি আক্তারের। তাদের একজন ৩ মাসের পুত্র সন্তান রয়েছে।

জানা যায়, স্বামী শফিক আহমদের সাথে বিয়ের পর থেকেই পরিবারে ঝগড়া-ঝাটি লেগেই ছিল মুন্নির। মাদকগ্রহণসহ অন্যান্য অন্যায়ের প্রতিবাদ করলে প্রায়ই স্ত্রী মুন্নিকে মারপিট করতেন স্বামী শফিক মিয়া। শুক্রবার সন্ধ্যা পরে বেদম মারপিট করা হয় তাকে। ভোর রাতে ফের মারপিট করেন শফিক মিয়া। মারপিটে ঘটনাস্থলেই মারা যান স্ত্রী মুন্নি। আহত ভেবে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজে নিয়ে গেলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা মুন্নিকে মৃত ঘোষণা করেন।

সেখান থেকে সিএনজি যোগে জাফলং লাশ নিয়ে আসার সময় তামাবিল স্থলবন্দর হতে স্বামী শফিক মিয়াকে গ্রেপ্তার করে গোয়াইনঘাট থানা পুলিশ। এ সময় থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজে প্রেরণ করেছে।

এ ঘটনায় গোয়াইনঘাট থানায় পরিবারের পক্ষ থেকে হত্যা মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

Sharing is caring!

Loading...
Open