‘আইএস টুপির উৎস জানার চেষ্টা হচ্ছে’

গুলশানে হলি আর্টিজান বেকারিতে জঙ্গি হামলার আসামির মাথায় আইএসের চিহ্নসংবলিত টুপি কিভাবে গেল সেটা দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেছেন, ‘টুপি নিয়ে অ্যালার্মিংয়ের কিছু নেই। এটা একটা কাপড়। একটা টুপি মাথায় দিয়েছে, এটায় অ্যালার্মিংয়ের কী বিষয় আছে?’

টুপির উৎস জানা গেছে কি না জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘কেউ না কেউ তো দিয়েছে। কে দিয়েছে, আমরা একটু জেনে নিই। কারণ বন্দিটাকে নিয়ে (আদালতে) গেছে যখন, তখন জনগণের ভেতর দিয়েই তো গেছে। কিভাবে পেয়েছে সেটা আমাদের এখন একটু দেখার বিষয়। আমরা দেখে নিই। না দেখে এটার সম্পর্কে আমরা বলতে পারব না।’

জঙ্গিদের প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, ‘এরা তো সব সময়ই বলছে, এরা ওই মতাদর্শী। আমরা সব সময় বলেছি, আমাদের দেশে এগুলো নেই। এগুলো সব হোমমেড জঙ্গি। আর ওরা ওখানে (আইএস) কানেক্টেড হতে চেয়েছে, এটা সব সময় বলেছে।’

গুলশানে হামলা মামলার রায় ঘোষণার দিন দণ্ডিত দুই জঙ্গি পালা করে আইএসের চিহ্নসংবলিত একটি টুপি পরেছিলেন। ওই টুপি তাঁরা কিভাবে পেলেন তার উত্তর এখনো মেলেনি।

এক প্রশ্নের জবাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা যেটুকু দেখেছি, কারাগার থেকে এমন কিছু আসেনি, সেটা কারা কর্তৃপক্ষ বলছে। পুলিশ বলছে, তারা এটা সাপ্লাই হতে দেখেনি। কাজেই কিভাবে এলো, তদন্তের বাইরে আমরা কিছু বলতে পারব না। আমরা পরবর্তী সময়ে জানিয়ে দেব, এটা কিভাবে পেয়েছিল।’ কারা কর্তৃপক্ষ ও পুলিশ ছাড়া তৃতীয় কোনো পক্ষকে দিয়ে আরেকটি তদন্ত করা হবে কি না, জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ‘অবশ্যই হবে। বেরিয়ে আসবে, সবই আসবে।’

Sharing is caring!

Loading...
Open