পিতাপুত্র মিলে ১০ বছর ধর্ষণ, অতঃপর…

সুরমা টাইমস ডেস্ক:: ফ্রাঁসিস কিলিং। তার বয়স ৭৩ বছর। আর নাথানিয়েল কিলিংয়ের বয়স ৩৮ বছর। তারা পিতাপুত্র। তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, ১০ বছর ধরে তারা দুটি যুবতীকে ধর্র্ষণ করে আসছেন। হাসপাতালের বেডে, চার্চে। যেখানেই সুযোগ পেয়েছেন, তাদেরকে একা পেয়েছেন অমনি তাদেরকে ধর্ষণ করেছেন তারা। এখন বিচারের জন্য অপেক্ষায় আছেন এই পিতাপুত্র।

অভিযোগ আছে, তারা প্রতিদিন ওই যুবতীদের ধর্ষণ করতেন। তাদের বিরুদ্ধে সব মিলিয়ে ২১৬টি অভিযোগ আনা হয়েছে। পিতাপুত্র মিলে ২০০৭ সাল থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত ১০ বছর সময়ে এসব ঘটনা ঘটিয়েছেন। ঘটনাটি যুক্তরাষ্ট্রের ওয়েস্ট ভার্জিনিয়ার। সেখানকার বেকলিতে অবস্থিত একটি চার্চের বেসমেন্টে ২৪ ঘন্টায় তিনবার এক যুবতীকে ধর্ষণ করেছেন ফ্রাঁসিস। নির্যাতিত যুবতীরা এর পর মে মাসে পুলিশে অিিভযোগ দেন। দু’এক মাসের ব্যবধানে গ্রেপ্তার করা হয় পিতাপুত্রকে। বলা হয়, নির্যাতিত ওই দুই যুবতী তাদের আত্মীয়। তবে কেমন আত্মীয়, বা কি হন তারা, তাদের নাম, এর কিছুই প্রকাশ করা হয় নি। এক যুবতী অভিযোগ করেছেন, তিনি একটি হাসপাতালের বিছানায় ছিলেন। সেখানে সেই বিছানা শেয়ার করতে তাকে বাধ্য করেন ফ্রাঁসিস। এ সময় তাকে ধর্ষণ করেন তিনি। তার আরো অভিযোগ, তিনি একা ঘুমানোর চেষ্টা করছেন এমনটা বুঝতে পারলেই তার পিছু নিতো ফ্রাসিস। বাধ্য করতো তার বিছানায় জায়গা দিতে। সেখানেই তার ওপর যৌন লালসা মিটিয়ে নিতো। অভিযোগের পর গত ২৫ আগস্ট গ্রেপ্তার করা হয় ফ্রাঁসিসকে। একজন রক্ষক, অভিভাবক হয়ে যৌন নির্যাতন, যৌন সম্পর্ক স্থাপন ও যৌন হয়রানি সহ ৫২টি অভিযোগ গঠন করা হয়েছে তার বিরুদ্ধে। অন্যদিকে তার ছেলে নাথানিয়েলকে গ্রেপ্তার করা হয় ২১ শে অক্টোবর। তার বিরুদ্ধে ২০টি অভিযোগ গঠন করা হয়েছে। পিতাপুত্রকে এখন জেলে রাখা হয়েছে।

Sharing is caring!

Loading...
Open