সেই দুই পিকআপে পাঠানো ১০০ কোটি টাকার মালিক শনাক্ত

ক্যাসিনো অভিযান শুরু হবার প্রায় দুই সপ্তাহ পরে গোয়েন্দা বাহিনীর বরাত দিয়ে সংবাদ প্রকাশ হয়েছিল, হুন্ডির উদ্দেশ্য ঢাকা থেকে দুই পিকআপ ভর্তি টাকা চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়েছে, গোয়েন্দাদের কাছে এমন তথ্য আছে।
অবশেষে সেই দুই পিকআপ ভর্তি টাকার রহস্যের জট নাকি খুলতে শুরু করেছে , এমনটাই জানা গিয়েছে গোয়েন্দা সূত্রে। ইতিমধ্যে নাকি টাকার মালিককে শনাক্ত করতে সক্ষম হয়েছেন তারা।

এর আগে এক চালককে শনাক্ত করার পর তার সূত্র ধরে এবার মালিক শনাক্ত হলেন। ঐ দুই পিকআপে ১০০টি প্যাকেটে ১০০ কোটি টাকা ছিল। পিকআপ দুটির শেষ গন্তব্য ছিল ফেনী। সেখানে দুই ভাগে টাকা রিসিভ করা হয়। পিকআপ চালককে গ্রেফতারের জন্য অভিযান চালাচ্ছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

গত ১৪ অক্টোবর একজন চালককে শনাক্ত করা হয়। অপর চালককে এখনো পর্যন্ত শনাক্ত করা সম্ভব হয়নি। তার মোবাইল ফোন বন্ধ রয়েছে। তার ভাগ্যে কী ঘটেছে তাও জানা যায়নি। তাছাড়া পিকআপ দুটিরও সন্ধান মেলেনি।

গত ১৮ সেপ্টেম্বর ক্যাসিনো দুর্নীতি বিরোধী অভিযান শুরু হওয়ার দুই দিন পর দুই পিকআপ ভর্তি টাকা সরানোর লক্ষ্যে ঢাকা থেকে রওয়ানা হয়। এই টাকা কোথায় গেছে, কার টাকা, এখন কী অবস্থায় আছে-এর রহস্য দ্রুত উদ্ঘাটিত হবে বলে গোয়েন্দা কর্মকর্তারা আশা করেছেন। যেহেতু টাকার মালিককে শনাক্ত করা হয়েছে, তাই সব কিছু উদ্ঘাটন করা এখন আর কষ্ট হবে না আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর।

সে দিন রওয়ানা হওয়ার পর চৌদ্দগ্রাম পর্যন্ত একজন চালকের মোবাইল নম্বর ট্র্যাকিং করেন গোয়েন্দারা এবং তাকে শনাক্ত করতে সক্ষম হন। তবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অভিযান শুরু করার আগেই তারা ফেনী পৌঁছে যায়। মোবাইল ফোনের ট্র্যাকিংয়ে চালকের অবস্থান ফেনী পর্যন্ত ছিল। সেখানে গিয়ে টাকা দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে যায়। এ পর্যন্ত গোয়েন্দা কর্মকর্তারা নিশ্চিত হয়েছেন। টাকাটা কে রিসিভ করেছেন তা শিগিগরই শনাক্ত করতে সক্ষম হবেন।

এখন সময়ই বলে , কার নাম উঠে আসছে সেই দুই পিকআপের ১০০ কোটি টাকার মালিক হিসাবে।

Sharing is caring!

Loading...
Open