যে কারনে গ্রেফতার হলেন সিলেটের সাংবাদিক বুলবুল

সুরমা টাইমস ডেস্ক:: বেসরকারি টেলিভিশন এন টিভির সিলেট ব্যুরো প্রধান ও সিলেট প্রেসক্লাবের সিনিয়র সদস্য সাংবাদিক এডভোকেট মইনুল হক বুলবুলকে গ্রেফতার করছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (১৯শে সেপ্টেম্বর) রাত সাড়ে ১০টার দিকে নগরীর মীরবক্সটুলা এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে কানাইঘাট থানা পুলিশ। তাদেরকে সহায়তা করে সিলেট মহানগর পুলিশ (এসএমপি)।জানা যায়, বৃহস্পতিবার রাতে নগরীর উইমেন্স হাসপাতালে পরিচিত এক রোগীকে দেখতে যান মইনুল হক বুলবুল। রোগী দেখা শেষে তিনি হাসপাতালের করিডোরে বসা ছিলেন। এসময় আচমকা সাদা পোশাকে ৬/৭জন অস্ত্রধারী সেখানে গিয়ে তাকে তুলে নিয়ে আসে।

এসময় বুলবুলের পাশে ছিলেন সিলেটের সিনিয়র সাংবাদিক লিয়াকত শাহ ফরিদী। ঘটনার বর্ণনা দিয়ে তিনি বলেন, হাসপাতালের করিডোরে বসে আমরা গল্প করছিলাম। আচমকা ৬/৭ জন অস্ত্রধারী সেখানে উপস্থিত হয়। তারা বুলবুলের কাছে তার পরিচয় জানতে চান। পরিচয় জানানো পরপরই তারা বুলবুলকে ধরে নিয়ে যান। এসময় আমরা অস্ত্রধারীদের পরিচয় জিজ্ঞেস করলেও তারা কোনো কথা বলেননি।

একটি সূত্র জানিয়েছে, কানাইঘাট এলাকার জনৈক এক ব্যক্তিকে বিদেশ পাঠাবার কথা বলে তার ১২ লাখ টাকা আত্মসাত করেন বলে অভিযোগ রয়েছে এডভোকেট মইনুল হক বুলবুলের বিরুদ্ধে।
এবিষয়ে কানাইঘাট থানার ওসি মো. শামসুদ্দোহা বলেন, মঈনুল হক বুলবুলের বিরুদ্ধে গত ১৬ই সেপ্টেম্বর আদালতে মামলা করেন কানাইঘাটের কারাবাল্লা এলাকার রায়হান আহমদ। যাহার সি আর মামলা নং-২১। মামলার বিষয়ে আদালত পুলিশকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দেন। এরই প্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে কানাইঘাট থানার এসআই দেলোয়ার হোসেনের নেতৃত্বে একদল পুলিশ সিলেট নগরীর মীরবক্সটুলাস্থ উইমেন্স হাসপাতালে থেকে সাংবাদিক মইনুল হক বুলবুলকে গ্রেফতার করে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সিলেট কোতয়ালী থানার ওসি সেলিম মিঞা। তিনি বলেন, মইনুল হক বুলবুলের বিরুদ্ধে কানাইঘাট থানায় প্রতারণা মামলা রয়েছে।

Sharing is caring!

Loading...
Open