সিলেট নগরের বন্দরবাজার এলাকা থেকে ৪ ছিনতাইকারী আটক

সিলেট নগরের বন্দরবাজার এলাকার কোর্ট পয়েন্ট থেকে ছিনতাই করে পালানোর চেষ্টাকালে ৪ ছিনতাইকারীকে আটক করেছে কোতোয়ালী পুলিশ।শুক্রবার (৫ জুলাই) রাত প্রায় ১২টার দিকে সোবহানীঘাট পুলিশ ফাঁড়ীর ইনচার্জ এসআই অনুপ কুমার চৌধুরী সঙ্গীয় অফিসার ও ফোর্সসহ অভিযান চালিয়ে স্থানীয় জনগণের সহায়তায় তাদের আটক করা হয়।

আটককৃতদের কাছ থেকে ছিনতাইকৃত নগদ টাকা, ছিনতাই কাজে ব্যবহৃত ২টি ধারালো চাকু ও ১টি সিএনজি রেজি: নং-সিলেট থ-১১-৫১৮৭ জব্দ করা হয়।শনিবার (৬ জুলাই) সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের মিডিয়া অফিসার অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার মো. জেদান আল মুসা স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

আটককৃতরা হলেন- সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার শান্তিপুর গ্রামের আব্দুল কাদিরের ছেলে কামরান আহমদ সজল (২১)। বর্তমান সে সিলেট শিবগঞ্জ এলাকার বাসিন্দা। শিবগঞ্জের রমজান মিয়ার ছেলে মো. ইমরান আহমদ ইমন (২২), সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজার উপজেলার সিরাজ আহমদের ছেলে মো. জাকির মিয়া (২১)। বর্তমান সে সিলেটের শাহপরান থানাধীন বাহুবল আবাসিক এলাকার বাসিন্দা। টিলাঘর এলাকার সিরাজ মিয়ার ছেলে মো. জুনেদ আহমদ (২৩)।

পুলিশ জানায়, ছিনতাই করে পালিয়ে যাওয়ার সময় তাদের আটক করা হয়। উক্ত ছিনতাইয়ের ঘটনার শিকার তারেক আহমদ বাদী হইয়া থানায় এজাহার দায়ের করলে কোতোয়ালী মডেল থানার মামলা নং- ১৪, জি.আর-৩০৩ তাং- ০৬/০৭/২০১৯ খ্রিঃ ধারা- ৩৯২/৪১১ পেনাল কোড রুজু হয়।

পুলিশ আরো জানায়, আটককৃতদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় একাধিক চুরি ও ছিনতাই মামলা রয়েছে। আটককৃত কামরান আহমদ সজল এসএমপি এর শাহপরাণ (র.) থানার ০৬টি মামলার অভিযুক্ত আসামি, ইমরান আহমদ ইমন এসএমপি এর শাহপরাণ (র.) থানার ০৩টি মামলার অভিযুক্ত আসামি, মো. জাকির মিয়া এসএমপি এর কোতয়ালী মডেল থানার ০১টি ও শাহপরান (র.) থানার ০১টি মামলার অভিযুক্ত আসামি, মো. জুনেদ আহমদ এসএমপি এর শাহপরাণ (র.) থানার ০২টি মামলার অভিযুক্ত আসামি।

Sharing is caring!

Loading...
Open