আড়াইশ’ কোটি টাকা নিয়ে পালালেন দুবাই শাসকের স্ত্রী

বিপুল পরিমাণ অর্থ নিয়ে লন্ডনে পালিয়েছেন দুবাইয়ের শাসকের স্ত্রী। সম্প্রতি ধনকুবের বাদশাহ শেখ মোহাম্মদ বিন রাশিদ আল মাকতুমের সঙ্গে সম্পর্ক ভেঙে গেছে প্রিন্সেস হায়া আল হোসাইনের।

দ্য মিরর জানায়, এক জার্মান কূটনীতিকের সহযোগিতায় গোপনে দেশ ছাড়েন ৪৫ বছর বয়সী প্রিন্সেস হায়া।
এ ঘটনায় আরব আমিরাত ও জার্মানির মধ্য কূটনৈতিক সম্পর্কে রীতিমতো ফাটল দেখা দিয়েছে বলে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য সান জানিয়েছে।এদিকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রাক্তন স্ত্রীকে ‘বিশ্বাসঘাতক’ বলে মন্তব্য করেছেন বাদশাহ শেখ মোহাম্মদ।

নতুন জীবন শুরু করতে দেশ ছাড়ার সময় ৩১ মিলিয়ন ডলার নিয়ে পালিয়েছেন প্রিন্সেস হায়া। বাংলাদেশি মুদ্রায় যা ২৬২ কোটি ১৬ লাখ টাকার চেয়েও বেশি।ছেলে জায়েদ (৭) এবং মেয়ে আল জালিলাকেও (১১) সঙ্গে করে নিয়ে গেছেন তিনি এমনটা ধারণা করা হচ্ছে।

রাজ পরিবারের ঘনিষ্ঠ দুইটা সূত্র থেকে নিশ্চিত হওয়া গেছে, প্রিন্সেস হায়া দেশ থেকে পালিয়ে গেছেন এবং তিনি বাদশাহের কাছ থেকে আনুষ্ঠানিক বিচ্ছেদ চাচ্ছেন।অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করা প্রিন্সেস হায়াকে গত মে মাস থেকে জনসম্মুখে দেখা যাচ্ছে না। এমনকি ফেব্রুয়ারি থেকে তার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমেও তিনি সরব নেই।

প্রিন্সেস হায়া জর্ডানের বাদশাহ কিং আবদুল্লাহর বোন। ২০০৪ সালে তিনি দুবাইয়ের বাদশাহকে বিয়ে করেন। ৬৯ বছর বয়সী শেখ মোহাম্মদ আরব আমিরাতের ভাইস প্রেসিডেন্ট এবং একই সঙ্গে দেশটির প্রধানমন্ত্রীও। তিনি দুবাইয়ের শাসকও। ধারণা করা হয় তিনি ৯০০ কোটি ডলারের সম্পত্তির মালিক।

Sharing is caring!

Loading...
Open