ক্রাইস্টচার্চের মসজিদে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় নিউজিল্যান্ডের রাগবি খেলোয়াড়ের ইসলাম গ্রহণ

ক্রাইস্টচার্চের মসজিদে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন নিউজিল্যান্ডের রাগবি খেলোয়াড় ওফা তুঙ্গাফাসি। শনিবার ভয়ঙ্কর সেই হামলায় বেঁচে যাওয়া আহত ব্যক্তিদের দেখতে হাসপাতালে যান এই খেলোয়াড়।

ডেইলি মেইলের খবরে বলা হয়, নিউজিল্যান্ডের সাউথ আইল্যান্ডের একটি হাসপাতালে আহতদের দেখতে গিয়ে ইসলামের প্রতি আকৃষ্ট হন ওফা তুঙ্গাফাসি। পরে তিনি ইসলাম গ্রহণ করেন। একই দিন ওফার বন্ধু ক্রীড়াবিদ সনি বিল উইলিয়ামসের মা ইসলাম গ্রহণ করেন।

এ প্রসঙ্গে ওফা তুঙ্গাফাসি বলেন, ‘হাসপাতালে মুসলিম ভাইদের দেখার অভিজ্ঞতা ছিল অন্যরকম। আমি তাদের থেকে অনুপ্রাণিত হয়েছি। আমি মোহাম্মদ (সা.) ও আল্লাহকে বিশ্বাস করেছি।’

আহতদের পাশে বিশ্বকাপ জয়ী সনি বিল উইলিয়ামস। ছবি: ডেইলি মেইল

জিম্বাবুয়ে ভিত্তিক একটি মসজিদের ইমাম সাজিদ মঙ্গলবার টুইট করেন। তিনি লিখেন, ‘সমস্ত প্রশংসা এক আল্লাহর জন্য। আমাদের ভাই সনি বিল উইলিয়ামসের মা ও তার বন্ধু ইসলাম গ্রহণ করেছেন। যদিও আমি দূরে থাকি; আমি সত্যি আমার ভাইয়ের জন্য সন্তুষ্ট। আল্লাহ তাকে সম্মানিত করেছেন।’

ব্রিটিশ জাজ কণ্ঠশিল্পী জন ফন্টেইন টুইটারে লিখেন, ‘আল্লাহু আকবার! আজ ওফা তুঙ্গাফাসি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন। আল্লাহ তাদের পক্ষে এটিকে সহজ করে দিন এবং তাদের জান্নাতুল ফিরদাউস দান করুন।’

জানা যায়, ক্রাইস্টচার্চের মর্মান্তিক ঘটনার পর রাগবি খেলোয়াড় ওফা ইসলামের বিষয়ে জানার চেষ্টা করে আসছিলেন। সেই সূত্রেই তিনি ইসলাম গ্রহণ করেন।

মুসলিমদের সঙ্গে সনি বিল উইলিয়ামস। ছবি: ডেইলি মেইল

গত ১৫ মার্চ ক্রাইস্টচার্চের দুই মসজিদে অস্ট্রেলিয়ার শ্বেতাঙ্গ এক জঙ্গির বর্বরোচিত হামলায় ৫০ জন মুসলিম নিহত হন। এ নিয়ে সারা বিশ্বে শোকের ছায়া নেমে আসে। ওই হামলার পরের শুক্রবার নিউজিল্যান্ডে বিশাল জুমার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়।

এদিকে সনি বিল উইলিয়ামস শুধু মুসলিমই নন। তিনি নিউজিল্যান্ড রাগবি ইউনিয়ন দলে খেলা প্রথম মুসলিম। এছাড়া নিউজিল্যান্ডের প্রখ্যাত রাগবি খেলোয়াড় ও পেশাদার হেভিওয়েট মুষ্টিযোদ্ধা। তিনি দুইবার রাগবি বিশ্বকাপও জেতেন। ক্রাইস্টচার্চ মসজিদে সন্ত্রাসী হামলার পর থেকেই মুসলমানদের পাশে দাঁড়িয়েছেন সনি বিল উইলিয়ামস।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close