উপজেলা পরিষদ নির্বাচনকে ঘিরে সরগরম গোলাপগঞ্জ

গোলাপগঞ্জ প্রতিনিধি:: দেশে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের ডামাডোল বেজে উঠেছে। সারাদেশে পাঁচটি ধাপে অনুষ্টিত হবে এ নির্বাচন। এরই অংশ হিসেবে গোলাপগঞ্জে চতুর্থ ধাপে আগামী ২৪শে মার্চ নির্বাচনের সম্ভাব্য তারিখ ঘোষনা করেছে বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন। নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সরগরম হয়ে উঠেছে পুরো গোলাপগঞ্জ। বিশেষ করে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামীলীগের প্রার্থীরা বেশ তৎপর হয়ে উঠেছেন নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য।

নির্বাচনে প্রতিদ্বন্ধিতার জন্য নড়েচড়ে বসেছেন চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের সম্ভাব্য প্রার্থীরা। এবারের নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে দলীয় প্রতীকে নির্বাচন অনুষ্টিত হবে। এজন্য সবার আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দু চেয়ারম্যান পদকে ঘিরেই। তবে ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে দলীয় প্রতীকে নির্বাচন না হলেও এ দুটি পদে প্রার্থীদের আগ্রহের কমতি নেই।

এদিকে সম্প্রতি গোলাপগঞ্জ উপজেলা অডিটোরিয়ামে আয়োজিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনত্তোর কর্মীসভায় বাংলাদেশে আওয়ামীলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ উপজেলা নির্বাচন নিয়ে তার বক্তব্যে বলেন কেন্দ্রীয় নির্দেশনা অনুসারে একজনকেই নৌকার প্রার্থী ঘোষনা করবে সংশ্লিষ্টরা। এ আলোকেই প্রস্তুত হচ্ছেন সম্ভাব্য আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা। দলীয় মনোনয়ন ভাগিয়ে নিতে চালিয়ে যাচ্ছেন জোর লবিং। এবারের নির্বাচনে আলোচনায় রয়েছেন বেশ কয়েকজন নতুন মুখ। ইতোমধ্যে তারা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে নিজেদের প্রার্থীতার কথা তুলে ধরছেন। অপরদিকে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি) নির্বাচনে না আসারও গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। তবে দলীয় প্রতীক ছাড়াও স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে নির্বাচন করতে পারেন কয়েকজন বিএনপি নেতা এমন আভাসও শোনা যাচ্ছে।

ঐতিহ্যবাহী গোলাপগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আলোচনায় রয়েছেন আওয়ামীলীগের সভাপতি এডভোকেট ইকবাল আহমদ চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক রফিক আহমদ, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হুমায়ূন ইসলাম কামাল, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিষ্ট্রার বদরুল ইসলাম শুয়েব, উপজেলা আ’লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক লুৎফুর রহমান, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য সৈয়দ মিসবাহ উদ্দিন, যুক্তরাজ্য আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি ও সিলেট জেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সুহেল আহমদ সাহেল, গোলাপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক আকবর আলী ফখর, সেচ্ছা সেবকলীগের কেন্দ্রীয় সদস্য আব্দুল ওয়াহাব জোয়ারদার মছুফ, সিলেট মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মনসুর আহমদ, সিলেট মহানগর যুবমহিলা লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাজিরা বেগম শীলা, উপজেলা সেচ্ছাসেবকলীগের সাবেক সভাপতি শামছুল আলম লস্কর, সিনিয়র সাংবাদিক জাতীয় দৈনিক জাগরণ পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক দুলাল আহমদ চৌধুরী, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক এমএ ওয়াদুদ এমরুল।
এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে সম্ভাব্য প্রার্থীদের মধ্যে অধিকাংশই বয়সে তরুণ। তাদের মধ্যে বেশ আলোচনায় রয়েছেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নজমুল হকের পুত্র জেলা যুবলীগ নেতা শাহিন আহমদ তিনি গত নির্বাচনেও ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিলেন , তা ছাড়াও আওয়ামীলীগ নেতা ও ভাদেশ্বর ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী রুমেল সিরাজ, পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন দিপন, উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা সোহেল বক্স, ।
উপজেলা নির্বাচন অফিসের তথ্য অনুসারে, গোলাপগঞ্জে একটি পৌরসভা ও ১১টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত এ উপজেলায় মোট ভোটার ২লক্ষ ২২হাজার ৫শত

Sharing is caring!

Loading...
Open