হ্যাকিংয়ের মাধ্যমে জাপানে ৫৩৪ মিলিয়ন ডলারের ভার্চুয়াল মুদ্রা চুরি

সুরমা টাইমস ডেস্ক::          জাপানের শীর্ষস্থানীয় মুদ্রা বিনিময়কারী প্রতিষ্ঠান কয়েনচেক জানিয়েছে, তাদের ইন্টারনেট নেটওয়ার্কে সাইবার হামলা চালিয়ে ৫৩৪ মিলিয়ন ডলার সমপরিমাণের ‘এনইএম’ ভার্চুয়াল মুদ্রা চুরি করা হয়েছে। এনইএম কিছুটা অপরিচিত ভার্চুয়াল মুদ্রা।

বিশ্বের ক্রিপ্টো-কারেন্সির সবচেয়ে বড় চুরির ঘটনা এটি (প্রচলিত মুদ্রা নয় নয়- ক্রিপ্টো-কারেন্সি)।

প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, এ ঘটনার পর তারা তাদের নেটওয়ার্কে বিটকয়েন ছাড়া সব ধরনের ক্রিপ্টো-কারেন্সি সঞ্চয় ও উত্তোলন বন্ধ করে দেয়।

কয়েনচেকের প্রতিনিধিরা এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের এ চুরির বিষয়টি অবহিত করেন। তারা বলেন, হ্যাকাররা জাপানের স্থানীয় সময় শুক্রবার রাত ২টা ৫৭ মিনিটে নেটওয়ার্কে প্রবেশ করে। কিন্তু পরদিন ১১টা ২৫ মিনিটের আগে এই হ্যাকিংয়ের বিষয়ে জানা যায়নি।

কয়েনচেক-এর চুরি হওয়া অর্থ একটি হট ওয়ালেট-এ সংরক্ষিত ছিল, যা এক্সচেঞ্জ কোম্পানির নেটওয়ার্কের সঙ্গে যুক্ত ছিল। এটা ছিল কোল্ড ওয়ালেটের বিপরীত। কোল্ড ওয়ালেটে ভার্চুয়াল মুদ্রা রাখা হয় অফলাইনে।

কোম্পানিটি জানিয়েছে, চুরি করা মুদ্রা যেখানে পাঠানো হয়েছে সেখানকার ডিজিটাল ঠিকানা তাদের কাছে রয়েছে এবং বিনিয়োগকারীদের ক্ষতিপূরণ দেয়ার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এর আগে জাপানের একই ধরনের আরেক কোম্পানি ম্যাটগক্স-এর নেটওয়ার্ক থেকে ২০১৪ সালে ৪০০ মিলিয়ন ডলার চুরি হয় এবং তারপর কোম্পানিটি আর ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি।

Sharing is caring!

Loading...
Open

Close