‘বেঁচে থাকতে কেউ মনে রাখেনি কাদেরকে’

সুরমা টাইমস ডেস্ক:: শক্তি কাপুর এক ভারতীয় সংবাদমাধ্যকে বলেন, আমি আমার ফিল্মি ক্যারিয়ারের অর্ধেকটা ওর সঙ্গে কাটিয়েছি। একসঙ্গে ১০০টির বেশি ছবিতে একসঙ্গে কাজ করেছি। এখন যখন ও চলে গেছে, তখন ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি ওকে মনে করছে। কোনও অভিনেতা বেঁচে না থাকলে, তাকে তখন কেন মনে করা হয়? কেন কেউ কিছু বলতে পারে না যখন কোনও এমন অভিনেতা অসুস্থ থাকে বা স্ট্রাগেল করে? তখনই কেন বলে যখন সে আর বেঁচে থাকে না। আশপাশে পর্যন্তও থাকে না তাঁরা।

শক্তি আরও বলেন, প্রায় শেষ দশক ধরে কোনও কাজই করেননি কাদের খান। ভুগছিলেনও। কেউই তা নিয়ে উদ্বিগ্ন ছিল না। কেন তাঁকে একা ফেলে দেওয়া হয়েছিল ? কেন কোনও অভিনেতা অসুস্থ হলে বা ভালো কাজ করতে না পারলে তাঁকে একা করে দেওয়া হয় ? আর্থিক দিক থেকে সুরক্ষিত ছিলেন কাদের খান। কিন্তু একা ছিলেন। কারণ, অসুস্থ থাকায় বেশিরভাগ মানুষই ওর সঙ্গে দেখা পর্যন্ত করেননি। পরিবারের সঙ্গে একাই রয়ে গেছিলেন।

শক্তির আরও দাবি, শেষ দেখায় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি নিয়ে একাধিক ইশুতে উদ্বেগও প্রকাশ করেছিলেন কাদের খান। কাদের শক্তিকে বলেছিলেন, এখন অভিনেতারা শুধু নিয়ের শরীর ও মুখ নিয়ে ব্যস্ত। অভিনয় বা ভাষা তাঁদের ফোকাসেই নেই।

Sharing is caring!

Loading...
Open