কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেললাইন পুনর্বাসন কাজের উদ্বোধন

নিজস্ব প্রতিবেদক:: কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেল লাইনের পুনর্বাসন এবং আখাউড়া-আগরতলা ডুয়েল গেজ রেল সংযোগ (বাংলাদেশ অংশ) নির্মান কাজের ১০সেপ্টেম্বর সোমবার বিকালে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী যৌথভাবে উদ্ধোধন করেন। একই সাথে এসময় ভেড়ামারা আগরতলা ১হাজার মেঘাওয়াট বিদ্যুৎ সঞ্চালন কাজের উদ্ধোধন করা হয়। পুরো অনুষ্টান কুলাউড়া রেলওয়ে স্টেশন পার্কিংয়ে সরাসরি ভিডিও কনফারেন্সে সম্প্রচার করা হয়। ভিডিও কনফারেন্সে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, বিএনপি সরকার ক্ষমতায় থাকাকালিন সময় কুলাউড়া-শাহবাজপুর সহ ভারতের সংগে সংযোগকারী বেশ কয়েকটি রেল যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়।

দীর্ঘ ১৬বছর পর বর্তমান সরকার ভারতের সহযোগিতা নিয়ে এই পুণর্বাসন কাজ হাতে নিয়েছে। এই লাইনটি চালু হলে এলাকাবাসী যেমন উপকৃত হবে তেমনি ভারত-বাংলাদেশ সম্পর্ক চিরস্থায়ী হবে। এই সরকার ক্ষমতায় থাকাকালে ভারতের সংগে সীমানা সমস্যা নিরসনসহ বেশ কিছু জটিল সমস্যার সমাধান হয়েছে। তিনি ১৯৭১সালে বঙ্গবন্ধুর আহবানে দেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে ভারত যে অবদান রেখেছিলো তা কৃতজ্ঞচিত্তে স্মরণ করেন।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন, আজকের এই উদ্ধোধনী অনুষ্টান এক সোনালী অধ্যায়ের সূচনা হলো। ১৯৬৫সালের পর দু দেশের যে রেল সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়েছিলো আজকের উদ্ধোধনের ফলে তা পুণস্থাপিত হলো। শেখ হাসিনার ভিশন-৪১ বাস্তবায়নে ভারতের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে। এ সময় ভারতের বিদেশ মন্ত্রী সুষমা স্বরাজ ও পশ্চিম ভঙ্গের মুখ্য মন্ত্রী মমতা ব্যাণার্জি, ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দে ও বাংলাদেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রী হাসান মাহমুদ আলী বক্ত্যব্য রাখেন। উদ্ধোধন শেষে বাংলাদেশের প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা ভেড়ামাড়া, আখাউড়া ও কুলাউড়ায় ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে জেলা প্রশাসক ও ৩জন মহিলা উপকারভূগীর সাথে মতবিনিময় করেন। ভিডিও কনফারেন্সে প্রশাসনিক ব্যক্তিবর্গ, রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব, রেলওয়ের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাগন ও সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

Sharing is caring!

Loading...
Open