শাহী ঈদগাহ খেলার মাঠে আর পশুর হাট নয়

নিজস্ব প্রতিবেদক :: নগরীর শাহী ঈদগাহ এলাকায় সিলেট সদর উপজেলার আওতাধিন শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়ামে এবার পশুর হাট বসানো হবে না বলে জানিয়েছেন উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ। বুধবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বার্তায় তিনি এমনটি জানান।

যদিও এরই মধ্যে ওই মাঠে পশুর হাট বসাতে তোড়জোর শুরু করেছেন ক্ষমতাসীন দলের কিছু নেতাকর্মীরা। তবে এর সাথে তাঁর কোন সম্পৃক্ততা নেই বলে দাবি করেছেন আশফাক।

গণমাধ্যমে পাঠানো বার্তায় আশফাক আহমদ বলেন, ‘সদর উপজেলা মাঠটি বর্তমানে শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়াম নামে নামকরণ করা হয়েছে। কিছু দিন থেকে একটি মহল উন্নয়ন কর্মকান্ডে ঈর্ষানিত হয়ে আমার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে। এমনকি তার নাম ভাঙিয়ে কে বা কারা ষড়যন্ত্রমূলকভাবে পশুর হাট বসানোর পাঁয়তারা করছে।’

তিনি বলেন, ‘সিলেট সদর উপজেলা খেলার মাঠে মেলা বা পশুর হাট বসানোর বিপক্ষে সব সময় আমার অবস্থান। বর্তমানে মাঠের উন্নয়নমূলক কাজও চলছে। এবারের ঈদে খেলার মাঠে কোন পশুর হাট বসবে না। এমনকি হাট যাতে না বসে সেজন্য সবরকমের ব্যবস্থাও নেওয়া হবে।’

বিবৃতিতে তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, ‘যারা আজ এই মাঠ নিয়ে মায়া কান্না দেখাচ্ছেন মূলত এখানে তাদের কোন অবদান নেই। যে কয়েকবার এই মাঠ হাট বাজারের জন্য ইজারা দেওয়া হয়েছে তার সব অর্থ সদর উপজেলা পরিষদের নামে ব্যাংক হিসাবে রাখা হয়েছে। ব্যাংক হিসাবটি যৌথ স্বাক্ষরে পরিচালিত হয়, এখানে হাতে কোন নগদ টাকা নেওয়ার সুযোগ নেই। অথচ উন্নয়ন বিরোধীরা বলছে এখানে আমার কোটি কোটি টাকার বাণিজ্য হয়েছে। যা তাদের মনঘড়া কথা ছাড়া আর কিছু নয়।’

উল্লেখ্য, কয়েক বছর ধরে মাঠ উন্নয়নের নামে সদর উপজেলা মাঠে পশুর হাট বসানো হয়। যদিও এসব বিষয় বরাবরেই এড়িয়ে যান উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আশফাক।

Sharing is caring!

Loading...
Open