জনবল সংকটে ভোগছে বিশ্বনাথের সমাজসেবা অধিদপ্তর অফিস

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি::   দীর্ঘদিন ধরে জনবল সংকটে ভোগছে সিলেটের বিশ্বনাথের সমাজসেবা অধিদপ্তর অফিস। ফলে গুরুত্বপূর্ণ অনেক কাজ করতে হিমশিম খাচ্ছেন সমাজ সেবা অফিসে দায়িত্বরত অফিসারা। র্দীঘদিন ধরে ৭টি পদ শুণ্য থাকায় উপজেলার সমাজসেবা অফিসে কাজে আসলে লোকজন অনেক সময় সঠিক সময়ে কাজ না করে খালি হাতে বাড়ি ফিরত যেতে হয়। ফলে অফিসে আশা লোকজনকে পুহাতে চরম দূর্ভোগ।

সমাজসেবা অধিদপ্তরে অফিসের জনবল সংকটের কারণে এমনটাই হচ্ছে বলে সচেতন মহল মনে করছেন। তারপরও নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন সমাজসেবা দায়িত্বপ্রাপ্তরা। সমাজসেবা কার্যালয়ে অফিসারসহ ৭টি পদ দীর্ঘদিন ধরে শূন্য রয়েছে। এতে ওই অফিসের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট জনগণ দুর্ভোগের শিকার হচ্ছে। ১১ জন লোকবলের জায়গায় এ অফিসে লোকবল রয়েছে মাত্র ৪ জন। ফলে অফিসের কার্যক্রম চালাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে। উপজেলা সমাজসেবা অফিস থেকে মুক্তিযোদ্ধা ভাতা, বয়স্কভাতা, বিধবা ভাতা, প্রতিবন্ধীভাতা, কম্পিউটার প্রশিক্ষণ ও ক্ষুদ্র ঋণ বিতরণ কার্যক্রমসহ বেশ কয়েকটি বিষয়ক কার্যক্রম সম্পাদন করতে হয়। বর্তমানে এ অফিসে উপজেলা সমাজসেবা অফিসারের পদ শূন্য রয়েছে।

সমাজসেবা অফিস সূত্রে জানাগেছে, ১১টি পদে মধ্যে ৭টি পদ দীর্ঘদিন ধরে শূণ্য রয়েছে। শূণ্য থাকা পদের মধ্যে রয়েছে ফিল্ড সুপার ভাইজার ১জন, অফিস সহকারি যুক্ত কম্পিউটার অপারেটর ১জন, ইউনিয়ন সমাজকর্মী ৩জন, অফিস সহায়ক ১জন, কারিগরি প্রশিক্ষক ১জন।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, উপজেলার সমাজসেবা অফিসের লোকবল সংকট থাকায় সঠিকভাবে অনেক মানুষের কাজের পরামর্শ পাননা। অফিসে আসলে সময়মত লোকজনকেও পাওয়া যায় না। সমাজসেবা অফিস একটি গুরুত্বপূর্ণ দপ্তর। এখানে এলাকার লোকজনের আনাগোনা বেশি। এখানে বিভিন্ন ভাতার জন্য এলাকার লোকজন আসেন। অফিসে অনেক সময় লোকজনকে পাওয়া যায়নি বলে তারা অভিযোগ করেন। ফলে এলাকার মানুষকে অফিসে এসে পুহাতে হচ্ছে চরম দূর্ভোগ। অফিসে থাকা দায়িত্বরত কর্মরতরা লোকবল সংকটের কারণে বলে জানান। অভিলম্ভে সমাজসেবা অফিসে শূণ্য পদগুলো পূরণ করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের প্রতি অনুরোধ জানান এলাকাবাসী।

উপজেলা সমাজসেবা অফিসার আবু ইউসুফ ৭টি পদ শূন্য থাকার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, এলাকাবাসী যাতে দ্রুত সেবা পান, সে ব্যাপারে কর্মরতরা অতিরিক্ত কাজ করে যাচ্ছেন।

Sharing is caring!

Loading...
Open