এবার দিল্লি দখলের ডাক দিচ্ছে ক্ষমতাসীন তৃণমূল কংগ্রেস


ভারতের পশ্চিমবঙ্গ থেকে এবার রীতিমতো দিল্লি দখলের ডাক দিচ্ছে ক্ষমতাসীন তৃণমূল কংগ্রেস। আজ শনিবার কলকাতার মহাসমাবেশে জোটের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও বক্তাদের কণ্ঠেও ধ্বনিত হয়েছে সেই কথা।ধর্মতলার ভিক্টোরিয়া হাউজ মুখর হয়ে উঠেছে লাখো মানুষের পদচারণায়।

মহাসমাবেশে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বলেন, ‘দেশব্যাপী বিজেপির বিরুদ্ধে আমাদের লড়াই চলবে। আর এ রাজ্যে সিপিএম, কংগ্রেস এবং বিজেপির বিরুদ্ধে লড়াই চলবে।’ তিনি বলেন, ‘পুজো শেষ হতেই ব্রিগেডের প্রস্তুতি শুরু হবে। ২১ জুলাইয়ের থেকে বেশি জমায়েত হবে সেই সভায়।’

বিজেপি প্রসঙ্গে মমতা বলেন, ‘শিবসেনা তোমাদের জোটসঙ্গী ছিল, তারা ভোট দেয়নি। টিডিপি জোটসঙ্গী ছিল, তারাই অনাস্থা এনেছে। এছাড়া বিজেপির বিরুদ্ধে ধর্মীয় অসম্মানের অভিযোগও করেন মমতা। তিনি বলেন, ‘হিন্দু ধর্মকে অসম্মান করছে বিজেপি। এটা করার অধিকার ওদের নেই।’

হিটলার-মুসোলিনির সঙ্গে বিজেপির তুলনা করে মমতা বললেন, ‘হিটলার-মুসোলিনির থেকেও বড় সম্রাট এসে গিয়েছে। ওদের হাতে দাঙ্গার রক্ত লেগে আছে। ওদের ঔদ্ধত্য, অত্যাচার মেনে নেবেন না।’

এসময় বিজেপি কর্মীদের প্যান্ডেল ভাঙার কথা মনে করিয়ে দিয়ে মমতা বলেন, ‘প্যান্ডেল ভাঙা বড় কথা নয়, ওরা দেশটাই ভেঙে দিচ্ছে। ওরা নোংরা রাজনীতি করে। ব্যাঙ্কের টাকা লুঠ করছে। তালিবানি উগ্রপন্থা চালাচ্ছে।’

এছাড়া বিজেপির বিরুদ্ধে কর্মীদের সচেতন থাকতে হবে জানিয়ে তিনি কর্মীদের বলেন, ‘বিজেপি যাতে টাকা বিলি করতে না পারে সে দিকে নজর রাখুন। গ্রামে ঘুরে ঘুরে টাকা বিলোচ্ছে ওরা, বললেন মমতা।’

তৃণমূল কংগ্রেসের ডাকে মহাসমাবেশে বিপুলসংখ্যক মানুষ উপস্থিত হয়েছে। সারা ভারতে যখন বিজেপি সরকারের প্রচণ্ড প্রতাপ, তখনই যেন কলকাতায় বিপরীত স্রোত এ মহাসমাবেশ।

পশ্চিমবঙ্গে এ বছর তৃণমূল কংগ্রেসের শহীদ স্মরণের ২৫ বছর। এজন্য আয়োজন করা হয় মহাসমাবেশের।
close

Sharing is caring!

Loading...
Open