‘নাগরিক প্রত্যশা যেমন নগরী চাই’ সেমিনারে ৩৪টি প্রস্তাব

সুরমা টাইমস ডেস্ক:: বাংলাদেশ জাতীয় ইমাম সমিতি সিলেট মহানগর শাখার উদ্যোগে ‘নাগরিক প্রত্যাশা যেমন নগর চাই’ সিলেট নগরীর অতীত বর্তমান আগামীর রূপরেখা শীর্ষক সেমিনার শনিবার দুপুর ২টায় সিলেট জেলা পরিষদ হলে অনুষ্ঠিত হয়।

ইমাম সমিতি সিলেট মহানগর সভাপতি মাওলানা হাবীব আহমদ শিহাব এর সভাপতিত্বে সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন লেখক ও গবেষক কবি মুসা আল হাফিজ।

প্রবন্ধে সিলেট সিটি নির্বাচনে মেয়র ও কাউন্সিল প্রার্থীদের অবগতি ও মেগা সিটি গড়ার লক্ষ্যে গুরুত্বপূর্ণ কিছু প্রস্তাবনা উপস্থাপনা করা হয়। উপস্থিত মেয়র, কাউন্সিলর প্রার্থীগণ মনোযোগের সাথে প্রস্তাবনাগুলো শুনেন।

মূল প্রবন্ধে সিলেটের প্রাচীন ইতিহাস-ঐতিহ্য, নামকরণ, হাট থেকে শহরের নামকরণ ও উন্নতি, শহরের বিকাশ, সিলেটের বসতি, আয়তন, জনসংখ্যার রূপ ফুটে উঠেছে। বর্তমান সিলেট নগরীর উল্লেখযোগ্য সমস্যা ও সমাধানের পথপন্থা খুঁজেবের করার পন্থা স্থান পায়। আগামী দিনের মেগা সিটি গড়ার লক্ষ্যে প্রবন্ধে ৩৪টি প্রস্তাবনা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী প্রার্থীদের সামনে পেশ করা হয়।

প্রস্তাবনার মধ্যে রয়েছে- নগরীর রাস্তা-ঘাট প্রশস্থকরণ, হকারমুক্ত ফুটপাত, টাউনবাস সার্ভিস, নিরাপদ পানি সরবরাহ, ট্রাফিক ও পার্কিং ব্যবস্থায় উন্নয়ন, গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে ফুটওভার, যানজট নিরসন, যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা, জলাবদ্ধতা নিরসন, নগর পরিকল্পনা আধুনিকায়ন, বস্তিবাসী ও প্রান্তিক জনগোষ্ঠির উন্নয়ন, শিল্পায়ন ও কর্মসংস্থান, মানব সম্পদ উন্নয়নে দক্ষজন শক্তি তৈরী, নদী-খাল ড্রেজিং, নিজস্ব সংস্কৃতির বিকাশ, মুক্ত বাতাসের বৃক্ষপার্ক, নিরাপদ খাবার, পর্যটনের বিকাশ, বিদ্যুৎ-গ্যাসের নিরবিচ্ছিন্ন সরবরাহ, পর্যাপ্ত খেলার মাঠ, ওয়ার্ড ভিত্তিক পাঠাগার স্থাপন, গোরস্থানের উন্নয়ন, আধ্যাত্মিক নগরীর বৈশিষ্ট সংরক্ষণ, ধর্মীয় সম্প্রীতির সুরক্ষা, মার্কেট উন্নয়ন, ভূমিকম্প ও দুর্যোগে করণীয় বিষয়ক প্রশিক্ষণ, ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান ভিত্তিক সামাজিক কার্যক্রম, আইটি সিটি গঠন সহ বেশকিছু প্রস্তাব পেশ করা হয়।

প্রবন্ধের উপর আলোচনা পেশ করেন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির বিশ^বিদ্যালয়ের সমাজকর্ম বিভাগের প্রফেসর মোয়াজ্জম হোসেন, মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. নজরুল হক চৌধুরী, এম.সি বিশ^বিদ্যালয় কলেজের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর হাবিবুর রহমান।

আলোচকবৃন্দ তাদের বক্তব্যে বলেন, প্রবন্ধের সবকটি প্রস্তাব বাস্তব সম্মত। তাই আগামী নির্বাচনে যিনি মেয়র নির্বাচিত হবেন তার জন্য এগুলো বাস্তবায়ন খুবই জরুরী। নতুন পরিষদের নির্বাচিত সদস্যদের নিয়ে পরিকল্পনা গ্রহণ করা এবং প্রত্যেকটি জনকল্যাণমুখী কাজে সমাজের সম্মানিত ব্যক্তিবর্গ, মসজিদের ইমামগণকে সম্পৃক্ত করা। আগেকার সময় ইমামগণ কেবল মসজিদ-মাদরাসা নিয়ে ব্যস্ত থাকতেন, এখন আর সেই দিন নেই। ইমামগণ দেশকে উন্নত করার কাজে সম্পৃক্ত হচ্ছেন। এটি দেশও জাতির জন্য কল্যাণকর বার্তা।

মেয়র প্রার্থীদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, আরিফুল হক চৌধুরী, এহসানুল মাহবুব জুবায়ের, বদরুজ্জামান সেলিম ও এহছানুল হক তাহের।

মেয়র প্রার্থীগণ বলেন, ইমাম সমিতি সিটি নির্বাচনে সকল প্রার্থীদেরকে এ সেমিনার থেকে যে দিক নির্দেশনা দিয়েছে, এ থেকে বুঝা যায় যে, ইমামগণ দেরীতে হলেও নগরবাসীর কল্যাণে জেগে উঠেছেন। ইমামগণ যেভাবে মানুষের নিকটবর্তী, ঠিক তেমনিভাবে আল্লাহরও নিকটবর্তী। তাই শাহজালালের পুণ্যভূমিকে ঢেলে সাজাতে ইমামগণের সহযোগিতা একান্ত প্রয়োজন। প্রস্তাবিত বিষয়গুলো বাস্তবায়ন করতে কেবল নির্বাচিত প্রতিনিধিদের পক্ষে সম্ভব নয়, সরকারের বিভিন্ন সংস্থার সার্বিক সহযোগিতা ও আম জনতার সমর্থন প্রয়োজন।

মহানগর ইমাম সমিতির সাধারণ সম্পাদক মাওলানা সিরাজুল ইসলাম ও যুগ্ম সম্পাদক মুফতী আব্দুর রহমান শাহজাহানের যৌথ পরিচালনায় শুরুতে মহাগ্রন্থ আল কুরআন থেকে তেলাওয়াত করেন হাফিজ কারী আবিদ হাসান। হামদ পরিবেশন করেন মাওলানা ওলিউল্লাহ মাসুম।

সেমিনার বক্তব্য রাখেন ইসলামী ঐক্যজোটের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মুফতী ফয়জুল হক জালালাবাদী, ২০নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আজাদুর রহামন আজাদ, ইমাম সমিতির জেলা সভাপতি মাওলানা এহসান উদ্দীন, সহ সভাপতি আব্দুল মন্নান জালালাবাদী, সেক্রেটারী জালাল উদ্দিন ভূইয়া। এছাড়াও বিভিন্ন ওয়ার্ডের কাউন্সিলর প্রার্থী, রাজনীতিবিদ, পেশাজীবী, ব্যবসায় নেতৃবৃন্দ, সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ সহ ইমাম সমিতির নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। সেমিনার শেষে দেশ ও জাতির মঙ্গল, শান্তি, শৃঙ্খলা ও সমৃদ্ধি কামনা করে মোনাজাত পরিচালনা করেন সমিতির সভাপতি মাওলানা হাবীব আহমদ শিহাব।

Sharing is caring!

Loading...
Open