সিলেট সিটি নির্বাচন: আরিফের হাতেই ওঠলো ‘ধানের শীষ’

আরিফের মনোনয়নে ‘ব্যথিত’ সেলিম, পরে সিদ্ধান্ত জানাবেন

সুরমা টাইমস ডেস্কঃ সিলেট সিটি করপোরেশন (সিসিক) নির্বাচনে বিএনপি থেকে মেয়র পদে দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন আরিফুল হক চৌধুরী। সিসিকের বর্তমান এই মেয়রকেই দ্বিতীয়বারের মতো দলীয় মনোনয়ন দিল বিএনপি।

আজ বুধবার ঢাকার গুলশান কার্যালয়ে কেন্দ্রীয় এবং সিলেটের নেতৃবৃন্দের সাথে বৈঠক শেষে আরিফের নাম ঘোষণা করেন দলের মহাসচিব মীর্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বুধবার বিকেলে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী এ ঘোষণা করেন।

সভায় উপস্থিত ছিলেন বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা মো. মোশাররফ হোসেন, আমীর খসরু মাহমুদ, মঈন খান।

এদিকে সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আরিফুল হক চৌধুরীকে দলীয় প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করায় অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন বিএনপির আরেক মনোননয়ন প্রত্যাশী ও দলটির সিলেট মহানগর শাখার সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিম।

বিএনপির হাইকমান্ডের এমন সিদ্ধান্তের প্রতি অসন্তোষ প্রকাশ করে তিনি বলেন, দল এমন প্রার্থী ঘোষণা করায় আমি খুশি নই।

সিলেটের একটি অনলাইন পোর্টালের সাথে আলাপকালে সেলিম বলেন, “প্রত্যেক সিটি করপোরেশন নির্বাচনে আমরা নতুন মুখ দেখতে পাই। তাই আমার প্রত্যাশা ছিলো সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনেও কোন নতুন মুখ দেখতে পাবো। দলের এমন সিদ্ধান্তে (আরিফকে প্রার্থী ঘোষণা) আমি মোটেও খুশি নই। আমাকে ব্যথিত করেছে এমন সিদ্ধান্ত”।

আলাদাভাবে নির্বাচন করবেন কী না এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, “এ মূহুর্তে আমি মিটিংয়ে ব্যস্ত আছি। তবে পরবর্তীতে কি হবে তা এখনই আমি বলতে পারছিনা। তা বলবে সময়। সবার সাথে আলোচনা করে করণীয় নির্ধারণ করবো।”

এর আগেও আরিফের প্রতি বিভিন্ন সময় ক্ষোভ দেখান বিএনপির এ নেতাসহ দলের স্থানীয় কয়েকজন নেতা। তাদের অভিযোগ, মেয়র নির্বাচিত হওয়ার পর দলীয় কর্মকাণ্ডে অনিয়মিত হয়ে পড়েন আরিফ। এড়িয়ে চলতে থাকেন দলীয় বিভিন্ন কর্মসূচি। আরিফকে মনোনয়ন না দেওয়ারও দাবি করেছিলেন তাঁরা।

তবে বিএনপির শীর্ষ নেতারা দলীয় প্রার্থী হিসেবে আজ (মঙ্গলবার) আরিফুল হকের নাম ঘোষণা করেন।

ঢাকায় সভায় সিলেটের নেতৃবৃন্দের মধ্যে ছিলেন- বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রাজ্জাক, বিএনপি নেতা ও সিলেট সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের চৌধুরী শামিম, সাধারণ সসম্পাদক আলী আহমদ, ডা. শাহরিয়ার হোসেন, মহানগর বিএনপির সভাপতি নাসিম হোসেইন, সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিম, রেজাউল হাসান কয়েস লোদী, আজমল বখত সাদেক, ইশতিয়াক সিদ্দিকীসহ ১১ জন।

আরিফুল হক চৌধুরী বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য। তিনি সিসিকের গত নির্বাচনে আওয়ামী লীগ নেতা বদর উদ্দিন আহমদ কামরানকে বড় ব্যবধানে পরাজিত করে মেয়র নির্বাচিত হন।

এবার সিসিক নির্বাচনে বিএনপি থেকে মেয়র পদে নির্বাচন করতে আগ্রহী ছিলেন ছয়জন। তারা হলেন- সিসিকের বর্তমান মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, সিলেট মহানগর বিএনপির সভাপতি নাসিম হোসেন, সিনিয়র সহ-সভাপতি আব্দুল কাইয়ুম জালালী পংকী, সহ-সভাপতি রেজাউল হাসান কয়েস লোদী, সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিম ও যুবদল নেতা সালাহ উদ্দিন রিমন।

Sharing is caring!

Loading...
Open