সিলেটে খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবিতে লিফলেট বিতরণ

বিএনপির কেন্দ্রীয় কর্মসুচীর অংশ হিসেবে, ষড়যন্ত্রমুলক মামলার ফরমায়েসী রায়ে কারান্তরীণ দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তির দাবীতে নগরীতে লিফলেট বিতরণ করেছে সিলেট জেলা ও মহানগর বিএনপি। রবিবার দুপুরে বিপুল সংখ্যক দলীয় নেতাকর্মীর উপস্থিতিতে জেলা ও মহানগর বিএনপির উদ্যোগে পৃথকভাবে নগরীর গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্ট সমুহ এবং বিপনী বিতানে লিফলেট বিতরণ করা হয়। জেলা বিএনপির উদ্যোগে বন্দরবাজার এবং মহানগর বিএনপির উদ্যোগে আম্বরখানা এলাকায় লিফলেট বিতরণ করা হয়।

পৃথক লিফলেট বিতরণ অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সহ-ক্ষুদ্র ঋণ বিষয়ক সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক, বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও সিলেট জেলা সভাপতি আবুল কাহের চৌধুরী শামীম, কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ডা: শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরী, মহানগর সভাপতি নাসিম হোসাইন, জেলা সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ, মহানগর সহ-সভাপতি হুমায়ুন কবির শাহীন, জেলা সহ-সভাপতি একেএম তারেক কালাম, মহানগর সহ-সভাপতি সুদীপ রঞ্জন সেন বাপ্পু, জেলা উপদেষ্ঠা মাজহারুল ইসলাম ডালিম, জেলার সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রব চৌধুরী ফয়সল, মহানগর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এমদাদ হোসেন চৌধুরী, জেলা যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মামুনুর রশীদ মামুন চেয়ারম্যান, মহানগর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট আতিকুর রহমান সাবু, মহানগর সাংগঠনিক সম্পাদক মিফতাহ সিদ্দিকী, মুকুল মোর্শেদ, জেলা সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল কাশেম, শামীম আহমদ, আব্দুল আহাদ খান জামাল, মহানগর সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুব চৌধুরী, জেলার দফতর সম্পাদক এডভোকেট মো: ফখরুল হক, জেলা প্রচার সম্পাদক নিজাম উদ্দিন জায়গীরদার, মহানগর প্রচার সম্পাদক শামীম মজুমদার, জেলা ও মহানগর বিএনপি নেতৃবৃন্দের মধ্য থেকে আব্দুল ওয়াহিদ সোহেল, মির্জা বেলায়েত হোসেন লিটন, ডা: আশরাফ আলী, এম.এ মালেক, দিদার ইবনে তাহের লস্কর, শেখ মো: ইলিয়াস আলী, আব্দুল মালেক, আমিনুর রশীদ খোকন, আবুল কালাম, জিয়াউর রহমান দিপন, আফজাল উদ্দিন, শেখ কবির আহমদ, সেলিম আহমদ, উজ্জল রঞ্জন চন্দ, মোতাহির আলী মাখন, এম মখলিছ খান ও সুফিয়ান আহমদ প্রমুখ।
লিফলেটে বলা হয়েছে- সরকার রাজনৈতিক প্রতিহিংসার বশবর্তী হয়েই একটি ষড়যন্ত্রমুলক মামলায় তিন বারের সাবেক সফল প্রধানমন্ত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে ফরমায়েসী রায় প্রদান করে কারাগারে আটকে রেখেছে। শুধু তাই নয় আওয়ামী বাকশালী অপশাসনে বিধ্বস্ত গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার আন্দোলন দমিয়ে রাখতে বিএনপি চেয়ারপার্সনের মুক্তি নিয়ে টালবাহানা শুরু করেছে। এর মাধ্যমে প্রমাণ হচ্ছে দেশে আইনের শাসন নেই। সরকারের নগ্ন হস্থক্ষেপে প্রধান বিচারপতিকে শুধু চেয়ার নয়, দেশ পর্যন্ত ত্যাগ করতে হচ্ছে। বেগম খালেদা জিয়ার কারাবাস দীর্ঘায়িত করতে সরকার আদালতকে নগ্নভাবে ব্যবহার করছে। এই ফ্যাসিষ্ট সরকারের হাতে কেউ নিরাপদ নয়। দেশ জুড়ে খুন, গুম, ধর্ষন, হত্যা, ডাকাতি, ছিনতাই, রাহাজানির মহোৎসব চলছে। সেদিকে অবৈধ সরকারের কোন দৃষ্টি নেই। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারি বাহিনীকে বিরোধী রাজনৈতিক প্রতিপক্ষকে দমনের কাজে লাঠিয়াল বাহিনীর মত ব্যবহার করা হচ্ছে। ফলে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারি বাহিনীর প্রতি মানুষের আস্থা কমেছে। গণতন্ত্রের মা আপোষহীন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে কারাগারে রেখে অবৈধ সরকার দেশে একটি পাতানো নির্বাচন দিয়ে পুনরায় গদি দখলের ষড়যন্ত্র করছে। দেশপ্রেমিক জনতা সরকারের এই ষড়যন্ত্র নস্যাত করতে প্রস্তুত রয়েছে। বেগম খালেদা জিয়াকে ছাড়া দেশে কোন নির্বাচন প্রতিহত করতে জনগণ আজ ঐক্যবদ্ধ। তাই দেশ জাতির বৃহত্তর মঙ্গলের সার্থে অবৈধ ফ্যাসিস্ট সরকারের বিরুদ্ধে সকল দেশপ্রেমিক জনতাকে ঐক্যবদ্ধ করে দুর্বার প্রতিরোধ আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। আন্দোলনের মাধ্যমে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকার পুনর্বহাল করে একটি অবাধ ও সুষ্টু জাতীয় নির্বাচন আয়োজন করতে সরকারকে বাধ্য করতে হবে। এই আন্দোলনে সবাইকে এগিয়ে আসার আহবান জানানো হয়।–বিজ্ঞপ্তি

Sharing is caring!

Loading...
Open