ওসমানীনগরে প্রবাসীর বাড়ি ভাঙ্গচুরের ঘটনায় মামলা,০১ জন গ্রেফতার

ওসমানীনগর প্রতিনিধি::  সিলেটের ওসমানীনগরে প্রবাসীর ভূমি দখলে বাধা দেয়ায় বাড়িতে ভাঙচুর ও হামলার ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। আজ শুক্রবার বিকালে থানায় মামলা দায়ের করেন প্রবাসী মসুদ খাঁ এর মা আছাবি বিবি (৮০)। ২৩ জনের নাম উল্লেখ ও অজ্ঞাতনামা আরও ৭/৮জনকে আসামী করে তিনি মামলাটি দায়ের করেন। মামলায় একজনকে গ্রেফতার দেখিয়েছে পুলিশ। অভিযান চালিয়ে একটি পাইপগানও উদ্ধার করেছে পুলিশ।

হামলার পর পুলিশের হাতে আটক উপজেলা একারাই গ্রামের নজির মিয়া উক্ত মামলার এজাহারনামীয় আসামী হওয়ায় তাকে গ্রেফতার দেখিয়ে শুক্রবার বিকেলে আদালতের মাধ্যমে পুলিশ তাকে জেলহাজতে প্রেরণ করেছে।

এদিকে, ওই ভাঙচুর ও হামলার ঘটনায় পুলিশ অভিযান চালিয়ে একটি দেশীয় পাইপগান উদ্ধার করেছে। গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ১০ টরে দিকে পার্শ্ববর্তী মসজিদের পেছনের পরিত্যক্ত অবস্থায় পাইপগানটি উদ্ধার করা হয়। তবে কাউকে আটক করা হয়নি। হামলার সময় বেশ কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলির শব্দ শোনা গিয়েছিল। ধারণা করা হচ্ছে, উদ্ধারকৃত পাইপগান হামলার সময় ব্যবহার করা হয়।

ওসমানীনগর থানার ওসি মোহাম্মদ সহিদ উল্যা পাইপগান উদ্ধার ও মামলা দায়েরের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ‘এ ঘটনায় একজন গ্রেফতার আছেন। আর কাউকে গ্রেফতার করা হয়নি। আসামী গ্রেফতারে পুলিশ তৎপর রয়েছে।’

প্রসঙ্গত, গোয়ালাবাজর ইউনিয়নের শশারকান্দি গ্রাম সংলগ্ন সিলেট-ঢাকা মহাসড়কের বটের তল নামক এলাকায় যাত্রী ছাউনীর কাছে এক খন্ড ভূমি ক্রয় করেন একই গ্রামের যুক্তরাজ্য প্রবাসী মসুদ খাঁ। কিছু দিন ধরে একই গ্রামের এলাইছ মিয়ার ছেলেরা মসুদ খাঁর ক্রয় করা ওই ভূমির কিছু অংশের মালিকানা দাবি করে আসছেন। গত বৃহস্পতিবার সকালে এলাইছ মিয়ার ছেলেরা ওই ভূমির দখল নিতে খুঁটি বসান। মসুদ খাঁর মা তাতে বাধা দেন। দখলদাররা ঘটনাস্থলে মসুদ খাঁর বৃদ্ধা মা আরশ বিবিকে টানাহেচড়া করে মাটিতে ফেলে দেন। বেলা একটার দিকে এলাইছ মিয়ার ছেলে খোকন, রাসেল, রিপন, শিপনসহ আরো কয়েকজন দলবদ্ধ হয়ে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে মসুদ খাঁর বসত ঘরের দরজা-জানালা ভাঙচুর করেন। এ ঘটনায় স্কুলছাত্রীসহ আরো পাঁচজন আহত হন।

Sharing is caring!

Loading...
Open