মৌলভীবাজারের কোদালীপুরে রিকশা শ্রমিক ইউনিয়নের সভা

ন্যায্য ভাড়ার তালিকা প্রদান ও রেশনিং চালুর দাবি

মৌলভীবাজার জেলা রিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন রেজিঃ নং চট্টঃ-২৪৫৩-এর কোদালীপুল আঞ্চলিক কমিটির কর্মীসভা থেকে বাজারদরের সাথে সঙ্গতি রেখে রিকশা শ্রমিকদের ন্যায্য ভাড়ার তালিকা প্রদান, স্থায়ী স্ট্যান্ড স্থাপন ও শ্রমজীবী জনগণের জন্য রেশনিং চালুর দাবি জানানো হয়েছে। ০২ মার্চ শুক্রবার সন্ধ্যার সময় রিকশা শ্রমিক ইউনিয়নের কোদালীপুল আঞ্চলিক কমিটির আহবায়ক মোঃ জসিমউদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভা থেকে এই দাবি জানানো হয়। সভায় অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ট্রেড ইউনিয়ন সংঘ মৌলভীবাজার জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক রজত বিশ্বাস ও জেলা রিকশা শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি সোহেল আহমেদ। সভায় বক্তব্য রাখেন মৌলভীবাজার জেলা হোটেল শ্রমিক ইউনিয়ন রেজিঃ নং চট্টঃ ২৩০৫ এর সাধারণ সম্পাদক মোঃ শাহিন মিয়া, জেলা রিকশা শ্রমিক ইউনিয়নের সহ-সভাপতি মোঃ শাহজাহান আলী, সাধারণ সম্পাদক মোঃ দুলাল মিয়া, সহ-সাধারণ সম্পাদক মোঃ জসিমউদ্দিন, কোষাধ্যক্ষ মোঃ গিয়াসউদ্দিন, সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ কিছমত মিয়া, দুলাল মিয়া, আব্দুর রব, ইউনূছ আলী, চন্দন মিয়া, ফারুক মিয়া, আনিসুর রহমান, সফু মিয়া। সভায় বক্তারা বলেন চাল, আটা, ডাল, তেল, লবন, চিনি, পিয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের লাগামহীন ঊর্ধ্বগতির বাজারে রিকশা শ্রমিকরা মানবেতর জীবন যাপন করতে বাধ্য হচ্ছে। তার উপর সরকারের গণবিরোধী সিদ্ধান্তে দফায় দফায় গ্যাস-বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধির চাপ পড়ছে জন জীবনের সর্ব ক্ষেত্রে। আর এই চাপ সামলাতে গিয়ে রিকশা শ্রমিকসহ শ্রমজীবী জনগণের জীবনে ত্রাহি ত্রাহি অবস্থার সৃস্টি হয়েছে। অথচ সরকার জনজীবনের সমস্যাকে উপক্ষো আবারও গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধির পরিকল্পনা করছে। সভায় আগামী ২৮ মার্চ জেলা প্রশাসক ও পৌর মেয়র বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করার কর্মসূচি সফল করার বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়।

সভা থেকে বাজারদরের সাথে সঙ্গতি রেখে রিকশা শ্রমিকদের ন্যায্য ভাড়ার তালিকা প্রদান, জুলুম-নির্যাতন বন্ধ, স্থায়ী স্ট্যান্ড স্থাপন ও শ্রমজীবী জনগণের জন্য রেশনিং চালু, চালসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যে কমানো, দফায় দফায় গ্যাস-বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধির পরিকল্পনা প্রত্যাহার, গণতান্ত্রিক শ্রমআইন প্রণয়নের দাবি জানানো হয়।

Sharing is caring!

Loading...
Open