ডাক্তারের সামনেই দুটো ডিম পেড়ে দেখালো এক কিশোর


সুরমা টাইমস ডেস্ক ঃঃ ডাক্তারের সামনেই দুটো ডিম পেড়ে দেখালো ইন্দোনেশিয়ার এক কিশোর। এরপর সে দাবি করছে গত দুই বছরে সে এভাবে মোট ২০টি ডিম পেড়েছে। এর আগে আরো ১৮টি ডিম পেড়েছে বলে দাবি করছে সে।

ইন্দোনেশিয়ার সাউথ সুলাওয়েসি প্রদেশের কাবুপাতেন গোয়া গ্রামের বাসিন্দা ১৪ বছর বয়সী ওই কিশোরের নাম আকমল। আকমলের দাবি সে ২০১৬ সালে থেকে ডিমে পেড়ে আসছে।

বিষয়টি নিয়ে চিন্তিত হয়ে পড়ে আকমলের পরিবার। তাকে বারবার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সম্প্রতি ডাক্তারদের সামনেই দুটি ডিম পেড়েছে আকমল।

বর্তমানে গোয়ার ‘শায়খ ইউসুফ’ হাসপাতালে চিকিৎসা চলছে আকমলের। এদিকে এ ঘটনায় চিকিৎসকরা রীতিমতো অবাক। এক্সরে করে তার পেটের ভেতরে দুটি ডিমের মতো বস্তুও খুঁজে পেয়েছেন তারা। পরে তার পায়ু পথে অপারেশন করে সেগুলো বের করে আনা হয়।

এ নিয়ে আকমলের বাবা রুসলি বলেন, তার ছেলে যেসব ডিম পাড়ছে সেগুলো ভাঙার পর দেখা যাচ্ছে সেগুলো হয়তো পুরোটাই কুসুম, নয়তো পুরোটাই ডিমের সাদা অংশ।

হাসপাতালের মুখপাত্র মোহাম্মদ তাসলিম বলেন, আমাদের সন্দেহ আকমলের পায়ুপথ দিয়ে এগুলো ইচ্ছাকৃত ভাবে প্রবেশ করানো হয়েছে। তবে আমরা এ ধরনের কোনো কিছু সরাসরি দেখতে পাইনি।

তিনি বলেন, বৈজ্ঞানিকভাবে মানুষের দেহের ভেতরে ডিম সৃষ্টি হতে পারে না। মানুষের হজম প্রক্রিয়া বিবেচনায় এ অসম্ভব।

তবে আকমলের বাবা বিষয়টি অস্বীকার করেছেন। তিনি গণমাধ্যমকে বলেছেন, ছেলের শরীরে ডিম ঢোকাননি তারা। আর কেনই বা তারা এটা করতে যাবেন?

সূত্র: ডেইলি মেইল

Sharing is caring!

Loading...
Open