কানাইঘাটে ‘পুলিশের গুলিতে’ ফেরারী আসামী নিহত

সুরমা টাইমস ডেস্ক:: সিলেটে ডাকাতি মামলার এক ফেরারী আসামী’ পুলিশের গুলিতে’ নিহত হয়েছেন। নিহত আসামির নাম হাবিবুর রহমান (৩৩)। এ ঘটনায় ৪ পুলিশসহ আহত হয়েছেন অন্তত ১০ জন। গতকাল বৃহস্পতিবার (২১শে ডিসেম্বর) রাত সাড়ে ৯টায় সিলেটের কানাইঘাট উপজেলার সাতবাঁক ইউনিয়নের চড়ইপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশের ভাষ্য- হাবিবের লোকদের সঙ্গে পুলিশের গুলি বিনিময়কালে হাবিব গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা গেছেন।

তবে স্থানীয় সূত্র জানায়- হাবিব পুলিশের গুলিতে মারা গেছেন। তিন বছর আগে একটি ডাকাতি মামলার আসামি হয়ে পলাতক ছিলেন হাবিবুর রহমান। বৃহস্পতিবার রাতে উপ-পরিদর্শক (এসআই) আবু কাওসারের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল চড়ইপাড়া গ্রামে অভিযান চালিয়ে হাবিবুর রহমানকে ধরে ফেলে। এসময় স্থানীয়রা তাকে পুলিশের কাছ থেকে ছিনিয়ে নিতে চেষ্টা চালালে অবস্থা বেগতিক দেখে পুলিশ গুলি চালায়। এতে ঘটনাস্থলে প্রাণ হারান হাবিব। এ ঘটনায় চার পুলিশ সদস্যসহ এলাকার অন্তত আরো ৬ জন আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে রয়েছেন নিহত হাবিবুরের ভাই ফয়জুর রহমান (৩৬) ও ভাতিজা কামরুল ইসলামও (২০)।

হামলায় আহত এসআই আবু কাওসার, কনস্টেবল বশির, রাজ্জাক, ও পারভেজকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

কানাইঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল আহাদ হাবিব নিহত হবার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন- “পুলিশ তাকে ধরার পর ডাকাতরা তাকে ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। এসময় উভয় পক্ষের গুলাগুলিতে হাবিব নিহত হন।”

হতাহতদের উদ্ধার করে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠোনো হয়েছে্ । ‘পুলিশের সঙ্গে গুলি বিনিময়ে জড়িতদের ধরতে সাঁড়াশি অভিযান চালানো হচ্ছে’ বলেও জানান ওসি।

Sharing is caring!

Loading...
Open