পরীক্ষার্থীদের প্রশ্নপত্রে উত্তর লিখে দিলেন শিক্ষকরা!

সুরমা টাইমস ডেস্ক:: পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার প্রথম দিনে উপজেলার ৬৩নং দক্ষিণ ঘোষের টিকিকাটা প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে প্রশ্নপত্রে উত্তর লিখে দিয়েছেন শিক্ষকরা। বিয়ষটি নিয়ে কেন্দ্র পরিদর্শক ও শিক্ষকদের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে।

পরীক্ষা কেন্দ্রে দায়িত্বে নিয়োজিত সরকারি কর্মকর্তাকে ম্যানেজ করে কেন্দ্রসচিব ইংরেজি পরীক্ষার প্রশ্নপত্রে টিক, ছক মিলানো, রিঅ্যারেঞ্জসহ অধিকাংশ উত্তর লিখে দেন।

রোববার পরীক্ষাচলাকালীন সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ওই পরীক্ষা কেন্দ্রের ১২টি বিদ্যালয়ের ২২৯ জন শিক্ষার্থীর অধিকাংশের প্রশ্নে উত্তর লেখা দেখা যায়।

এ কেন্দ্রের সচিব ওই বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আফজাল মিয়া বলেন, শিক্ষার্থীরা নিজেরাই প্রশ্নপত্রে উত্তর লিখে নিয়েছে।

কেন্দ্রর দায়িত্বে নিয়োজিত উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা হেমায়েত উদ্দিন প্রশ্নে লেখার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, শিক্ষার্থীরা বাসায় মিলানোর জন্য প্রশ্নপত্রে টিক দিয়েছে।

এদিকে, প্রশ্নপত্র ফাঁস ও দায়িত্বে অবহেলার কারণে ১০২নং গুলিসাখালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কেন্দ্রসচিব ও ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মনোজ কুমার মিত্রকে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা রুহুল আমিন বলেন, প্রশ্নপত্রে উত্তর লেখা বেআইনি। এ বিষয়ে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Sharing is caring!

Loading...
Open