জকিগঞ্জের ঘুমন্ত শিক্ষিকার ছবি ছড়িয়ে দেয়ায় চেয়ারম্যানসহ ৩জনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক:: সিলেটের জকিগঞ্জের খলাছড়া সরকারি প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষিকা দীপ্তি বিশ্বাস বিদ্যালয়ে মডেল টেস্টের দায়িত্ব পালনের সময় অসুস্থ হয়ে ঘুমিয়ে পড়ার ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার অভিযোগে জকিগঞ্জ থানায় উপজেলা চেয়ারম্যান ইকবাল আহমদসহ ৩জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছেন তার স্বামী সুবিনয় মল্লিক।

সোমবার (২৩শে অক্টোবর) সন্ধ্যায় জকিগঞ্জ থানায় এ অভিযোগটি দায়ের করা হয়। দিপ্তী বিশ্বাস জকিগঞ্জ পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের ঘুপিরচক (বৃহত্তর হাইদ্রাবন) গ্রামেন সুবিনয় মল্লিকের স্ত্রী।

থানায় দায়েরকৃত অভিযোগে যাদের নাম রয়েছে তারা হলেন-জকিগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান ইকবাল আহমদ (৪৫), উপজেলার গেছুয়া গ্রামের নূর উদ্দিন (নুরাই মিয়ার) ছেলে কেএম মামুন (৪০), ভরণ খাদিমবাড়ী গ্রামের রুমান উদ্দিনের ছেলে মুন্না (২৬)।

সিলেটের জকিগঞ্জ থানার ওসি হাবীবুর রহমান হাওলাদার সুরমা টাইমসকে জানান-স্কুল শিক্ষিকার ছবি ফেইসবুকে ছড়িয়ে দেয়ার ঘটনায় শিক্ষিকার স্বামী সুবিনয় মল্লিক থানায় একটি অভিযোগ দাখিল করেছেন। এতে কাদের নাম রয়েছে জানতে চাইলে তিনি বলেন-উপজেলা চেয়ারম্যানসহ ৩জনের নাম উল্লেখ করা হয়েছে। এখন বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হবে।

সুবিনয় মল্লিক থানায় অভিযোগ দায়েরের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন- থানায় অভিযোগ দাখিলের পর আমাদেরকে দেয়া কপিতে সীল দিয়ে (আর ৩৫১) লেখা হয়েছে।

প্রসঙ্গত- গত ১৮ই অক্টোবর সিলেটের জকিগঞ্জ প্রাথমিক বিদ্যালয়ে মডেল টেস্টের দায়িত্ব পালনের সময় স্কুলশিক্ষিকা দীপ্তি বিশ্বাসের ঘুমিয়ে পড়ার ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়। স্থানীয় উপজেলা চেয়ারম্যান ইকবাল আহমদ বিদ্যালয় পরিদর্শন করতে গেলে তার মোবাইল ফোন দিয়ে সঙ্গে থাকা লোকজন ওই ছবি তোলেন। ওই সময় দীপ্তি বিশ্বাস অসুস্থ ছিলেন। সাথে সাথে অসুস্থ শিক্ষিকার এই ধরনের ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়া হয়। আর সাথে সাথে এই ছবি ভাইরাল হয়ে যায়,পক্ষে বিপক্ষে পড়তে থাকে হাজারো মন্তব্য।

Sharing is caring!

Loading...
Open