কমলগঞ্জে অটোরিক্সা চুরি করে টাকা দাবী,অতঃপর চোর আটক

নিজস্ব প্রতিনিধি:: মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার মাধবপুর ইউনিয়নের বনগাঁও থেকে গত সোমবার (৯ই অক্টোবর) গভীর রাতে একটি সিএনজি অটোরিক্সা চুরি করে বিকাশে ৫০ হাজার টাকা দাবী করে চোরচক্র। এ ঘটনার পর এলাকাবাসী সন্দেহমূলক এক চোরকে ধরে পুলিশে সোপর্দ করলে আর মুঠোফোনের সূত্রধরে এক দিনের মধ্যেই মৌলভীবাজারের একটি আস্তানা থেকে চুরি হওয়া সিএনজি অটোরিক্সা উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় আটক চোরসহ তিনজনকে আসামী করে কমলগঞ্জ থানায় একটি মামলা হয়েছে। পুলিশ আটক চোরকে গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করেছে।
কমলগঞ্জ থানা ও মাধবপুর ইউনিয়নের বনগাঁও গ্রামবাসী সূত্রে জানা যায়, গত সোমবার দিবাগত গভীর রাতে ওয়াহিদুল ইসলামের বাড়ি থেকে একটি সিএনজি অটোরিক্সা চুরি করে নেয় চোরচক্র। অটোরিক্সা ফেরৎ পেতে হলে বিকাশে উক্ত নম্বরে চোরচক্র আবার ০১৬৭৮৭০১৩৭০ নম্বর মুঠোফোন থেকে ফোন করে সিএনজি অটোরিক্সার মালিকের কাছে ৫০ হাজার টাকা দাবি করে।

অন্যদিকে গতকাল মঙ্গলবার মাধবপুর ইউনিয়নের পদ্মছড়া চা বাগান থেকে রমজান মিয়ার ছেলে চিহ্নিত চোর লিটন মিয়াকে এলাকাবাসী সন্দেহমূলক ধরে থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করে। গত সোমবার রাতে থানায় আটক লিটনকে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদকালে সে এই সিএনজি অটোরিক্সা চুরির সাথে যুক্ত থাকার সত্যতা স্বীকার করে।

গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় কমলগঞ্জ থানার পুলিশের একটি দল আটক লিটনকে নিয়ে উলে­খিত মুঠোফোনের সূত্র ধরে মৌলভীবাজারের একটি আস্তানা থেকে মাধবপুর থেকে চুরি হওয়া মাহফুজ এন্ড মুজিব পরিবহন নামের (মৌলভীবাজার-থ-১১-৩০২১) সিএনজি অটোরিক্সাটি উদ্ধার করেন। গতকাল মঙ্গলবার রাতেই সিএনজি অটোরিক্সার মালিক ওয়াহিদুল ইসলাম বাদী হয়ে আটক লিটন মিয়ার নাম উলে­খ করে আরও ২ জনকে অজ্ঞাত দেখিয়ে মোট ৩ জনকে আসামী করে কমলগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

কমলগঞ্জ থানার ওসি মো: বদরুল হাসান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মামলা হওয়ার পর আটক লিটনকে গ্রেফতার দেখিয়ে বুধবার মৌলভীবাজার আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়। তিনি আরও বলেন, গ্রেফতার হওয়া সিএনজি অটোরিক্সা চোর লিটনকে তদন্তকালে এনে জিজ্ঞাসবাদ করে চুরি হওয়া আরও সিএনজি অটোরিক্সা উদ্ধারের চেষ্টা করা হবে।

Open