বড়লেখায় শিশুকে কুপিয়ে পাঁচশত টাকা ছিনতাই!

নিজস্ব প্রতিনিধি :: মৌলভীবাজারের বড়লেখায় সামিল উদ্দিন (৭) নামে প্রথম শ্রেণীর এক স্কুলছাত্রকে কুপিয়ে ৫০০ টাকা ছিনিয়ে নিয়েছে মাছুম আহমদ ও বিলাল নামের দুই যুবক। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পুলিশ তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে বিলালকে গ্রেফতার করে।

সে উপজেলার ঘোলসা গ্রামের মৃত আব্দুন নুরের ছেলে। বুধবার পুলিশ আদালতের মাধ্যমে তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে। গুরুতর আহত সামিলকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

থানা পুলিশ ও আদালত সূত্রে জানা গেছে- ঘোলসা গ্রামের আরজান আলীর ছেলে স্থানীয় প্রাইমারী স্কুলের প্রথম শ্রেণীর ছাত্র সামিল উদ্দিন। প্রতিবেশি হাজেরা বেগম গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মোবাইল ফোনে ফ্লেক্সিলোডের জন্য সামিলকে ৫০০ টাকা দিয়ে পার্শবর্তী দোকানে পাঠান। দোকানে পৌঁছার আগেই গ্রামের তপুর আহমদের ছেলে মাসুম (২০) ও মৃত আব্দুন নুরের ছেলে বিলাল (২২) ধারালো ব্লেড ও ছুরি দিয়ে শিশু সামিলকে কুপিয়ে আহত করে ৫০০ টাকা ছিনিয়ে নেয়।

খবর পেয়ে থানার এসআই জাহাঙ্গির আলম অভিযান চালিয়ে ঘটনার সাথে জড়িতদের মধ্যে বিলালকে গ্রেফতার করেন। পরে বুধবার বিলালকে আদালতে পাঠানো হয়। আদালতে আসামী পক্ষে জামিন আবেদন করলে আদালত আসামীর জামিন নামঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরণ করেন।

গুরুতর আহত অবস্থায় সামিলকে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

মৌলভীবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ সহিদুর রহমান জানান- এ ঘটনায় আহত শিশুর মামা জয়নাল উদ্দিন থানায় মামলা করেছেন। এক আসামীকে পুলিশ গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠিয়েছে।

Sharing is caring!

Loading...
Open