কমলগঞ্জে প্রেম করার অপরাধে দেহ থেকে মস্তক বিছিন্ন করে হত্যা!

নিজস্ব প্রতিনিধ:: মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জের মাধবপুর চা বাগানের শ্রমিক বলরাম নুনিয়ার ছেলে পান ব্যবসায়ী সুমন নুনিয়া (২৪) বোনের বাড়ি যাচ্ছেন বলে গত শুক্রবার (৮ সেপ্টেম্বর) বাড়ি থেকে বের হয়েছিলেন। এর পর থেকে তাঁকে কোথাও খোঁজে পাওয়া যাচ্ছিলো না। নিখোঁজের তিন দিন পর সোমবার (১১ সেপ্টেম্বর) দুপুরে মিরতিংগা চা বাগানের নালায় মস্তকবিহীন অবস্থায় নিখোঁজ ব্যবসায়ীর মস্তকবিহীন লাশ উদ্ধার করা হয়।

এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে মঙ্গলবুর দুপুরে মিরতিংগা চা বাগানের চা শ্রমিক বদরী তন্ত বাই(৫০) ও তার ছেলে কান্ত তন্ত বাই(২৪) আটক করে পুলিশ।

আটককৃতদের স্বীকারোক্তিতে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ব্যবসায়ী সুমন নুনিয়ার কাটা মস্তক লাশ উদ্ধারের স্থল থেক ৫ কিলোমিটার দূর ধানি জমির কাদার নিচ থেকে উদ্ধার করা হয় । সে সময় হত্যায় ব্যবহৃত ধারালো অস্ত্রও উদ্ধার করে পুলিশ। পুলিশ জানায় হত্যকারিরা স্বীকারোক্তিতে দিয়েছে সুমনকে কান্ত বাইর বোনের সাথে প্রেম করার অপরাধেই তাকে এভাবে দেহ থেকে মস্তক বিছিন্ন করে হত্যা করা হয়।

কমলগঞ্জ থানার ওসি বদরুল হাসান জানান, দেহ ও মস্তক উদ্ধারের পর হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় তন্ত বাই (৫০) ও তার ছেলে কান্ত তন্ত বাইকে (২৪) গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Sharing is caring!

Loading...
Open