বঙ্গবন্ধুকে ছুঁতে পারে এমন জনপ্রিয় নেতা বাংলাদেশে জন্ম নেয়নি-ইমরান আহমদ

নিজস্ব প্রতিনিধি:: সাংসদ ইমরান আহমদ বলেছেন, বঙ্গবন্ধু ছিলেন অভিসংবাদিত নেতা। তার বিকল্প সে নিজেই। বঙ্গবন্ধুকে ছুঁতে পারে এমন জনপ্রিয় নেতা বাংলাদেশে জন্ম নেয়নি। তিনি শুধু বাংলাদেশ নয়, তিনি ছিলেন বর্হিঃবিশ্বেও জনপ্রিয় নেতা। তার সঠিক নেতৃত্ব, পরিচিতি, সুখ্যাতি, স্বাধীন বাংলাদেশের শুধু পতাকা এনে দেয়নি। একটি দেশকে বর্হিঃবিশ্বেও পরিচিতি লাভ করিয়েছিল। বঙ্গবন্ধুর জনপ্রিয়তা ছিল বিশ্বময়।

তিনি বলেন, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে স্বপরিবারে হত্যার মাধ্যমে ঘাতকরা বাংলাদেশের প্রতিহিংসা এবং ঘৃন্য রাজনীতির জন্ম দিয়েছিল। কিন্তু বাঙালির মুক্তির মহা নায়ক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জনপ্রিয়তা তাকে সমগ্র বাঙালি জাতি সহ আমাদের মাঝে জীবিত রেখেছে। জাতির জনকের স্বপরিবারে নির্মম হত্যা কান্ডের শোককে শক্তিতে পরিণত করে আওয়ামীলীগ এবং অঙ্গ সংগঠনের নেতা কর্মীদের এগিয়ে যেতে হবে।

ইমরান বলেন, বঙ্গবন্ধুকে হারিয়েছি, কিন্তু প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আমরা হারাতে চাই না। ২১শে আগস্ট গ্রেনেড হামলা সহ প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যা করতে একের পর এক ষড়যন্ত্র করে চালিয়ে আসছে ঘাতকরা।

তিনি শনিবার দুপুর ২টায় গোয়াইনঘাট উপজেলা যুবলীগের উদ্যোগে আয়োজিত শোক সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন। উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক ফারুক আহমদের সভাপতিত্বে ও যুগ্ম আহ্বায়ক শাহাব উদ্দিনের পরিচালনায় শোক সভায় বক্তব্য রাখেন, গোয়াইনঘাট উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি মোহাম্মদ ইব্রাহীম, গোয়াইনঘাট থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ দেলওয়ার হোসেন, পূর্ব জাফলং ইউপি চেয়ারম্যান ও মুক্তিযোদ্ধা লুৎফুর রহমান লেবু, গোয়াইনঘাট বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের অধ্যক্ষ ফজলুল হক, উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা মোঃ আসলম, জৈন্তাপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও সাবেক ইউ/পি চেয়ারম্যান কামাল হোসেন, উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা ইসমাইল আলী মাষ্টার, বাবু সুবাস চন্দ্র পাল ছানা, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল হক, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক সামছুল আলম, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান জামাল উদ্দিন মাষ্টার, ইউপি চেয়ারম্যান আমিনুর রহমান চৌধুরী, আওয়ামীলীগ নেতা আব্দুস সহিদ মাষ্টার, গোপাল কৃষ্ণ দে চন্দন, সিরাজ উদ্দিন, সফিকুর রহমান, হেলাল উদ্দিন, দেলওয়ার হোসেন, মিনহাজুর রহমান, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগ সভাপতি নজরুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক ছয়ফুল আলম আবুল, উপজেলা শ্রমিকলীগ সভাপতি মাসুক আহমদ। এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক আহমেদ মোস্তাকিন, আহ্বায়ক কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম, গোলাম কিবরিয়া রাসেল, ইউ/পি সদস্য কামাল হোসেন, মুজিবুর রহমান (লাইব্রেরী মুজিব), সুবাস দাস, মুজিবুর রহমান, মহি উদ্দিন মহি, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সাধারণ সম্পাদক গোলাম সরোয়ার, ছাত্রলীগ নেতা গোলাম রব্বানী সুমন, ইনসাদ হোসেন রাজিব, মাহফুজুর রহমান প্রমুখ।

Sharing is caring!

Loading...
Open