ঐতিহ্যবাহী শাহী ঈদগাহে সকাল ৯ টায় ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত ।।

নিজস্ব প্রতিবেদক

ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে দেশের অন্যান্য স্থানের মতো সিলেটে পালিত হচ্ছে ঈদুল ফিতর। ঈদকে সামনে রেখে অন্যান্য বারের মতো ঈদগাহর পাশাপাশি বিভিন্ন খোলা মাঠে আয়োজন করা হয় ঈদ জামাতের।

তবে আগের মধ্যরাত থেকে শুরু হওয়া বৃষ্টির কারণে খোলা মাঠে কাদা ও পানি জমে যাওয়ায় ঈদের জামাতে কিছুটা বিঘ্ন সৃষ্টি হয়। বিরূপ আবহাওয়াকে মাথায় রেখে অনেক পাড়া মহল্লার মসজিগুলোতে ব্যবস্থা করা হয় ঈদের জামায়াতের।

এদিকে বরাবরের মতো সিলেটে ঈদের সবচেয়ে বড় জামাত হয় ঐতিহ্যবাহী শাহী ঈদগাহে। সকাল ৯ টায় এখানে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়। জামাতে ইমামতি করেন বন্দর বাজার জামে মসজিদের ইমাম ও খতিব মাওলানা কুতুব উদ্দিন।

শাহী ঈদগাহে নামাজ আদায় করেন সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, সাবেক মেয়র ও মহানগর আওয়ামীলীগ সভাপতি বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ, জাতিসংঘের বাংলাদেশ মিশনের সাবেক স্থায়ী প্রতিনিধি ড. একে আব্দুল মোমেন, মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিমসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, প্রশাসনিক, সামাজিক ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা।

একই সময়ে ঈদের দ্বিতীয় বৃহৎ জামাত অনুষ্ঠিত হয় দরগাহে হযরত শাহজালাল (রহ.) জামে মসজিদে সকাল ৯টায়। এতে ইমামতি করেন হাফিজ মাওলানা আসজাদ আহমদ। এছাড়া শাহপরাণ (রহ.) মাজার মসজিদ, নবাবী জামে মসজিদ, জেলা প্রশাসনের কালেক্টরেট মাঠ এবং কানিশাইল ঈদগাহ ময়দানে ঈদের জামাত একই সময়ে অনুষ্ঠিত হয়।

Open