নবীগঞ্জে সংঘর্ষে নিহত ১: পুলিশসহ আহত ২০ , গ্রেফতার ১….

নবীগঞ্জ প্রতিনিধি : হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জ উপজেলায় দু’পক্ষ লোকের মধ্যে ঘন্টাব্যাপী রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে সবুর আলী নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়েছে। এতে পুলিশ কনষ্টেবলসহ উভয় পক্ষের অন্তত ২০ জন আহত হয়েছে। প্রায় ১৫/২০টি বাড়িঘর ভাংচুর করা হয়েছে। এঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে এক জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। জানা গেছে Ñ ৩ জুন শনিবার সকাল ৮ টায় পুর্ব শত্রুতার জের ধরে নবীগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়নের কানাইপুর গ্রামের আব্দুল বারিক ও সাবেক মেম্বার ফজর আলী লোকজনদের মধ্যে সংঘর্ষের সুত্রপাত হয়। এসময় উভয়পক্ষের লোকজন ইটপাটকেল, পিকল, লাঠিসোটাসহ দেশীয় অস্ত্র ব্যবহার করেন। সংঘর্ষে নবীগঞ্জ সদর ইউনিয়নের কানাইপুর গ্রামের মৃত তকদির আলীর পুত্র সবুর আলীসহ অন্তত ২০ জন লোক আহত হয়। এবং উভয় পক্ষের ১৫/২০টি বাড়িঘর ভাংচুর ও লুটপাট করা হয়। খবর পেয়ে নবীগঞ্জ থানার ওসি এসএম আতাউর রহমান একদল পুলিশ নিয়ে সংর্ঘষ নিয়ন্ত্রনে আনার চেষ্টাকালে থানা পুলিশের এক কনষ্টেবল আহত হয়। স্থানীয় লোকজন আহতদের নবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে গুরুতর আহত সবুর আলী ( ২৫ )কে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত বলে ঘোষনা করেন। এবং অন্যান্য আহতদের নবীগঞ্জ, হবিগঞ্জ ও সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। সবুর আলী নিহতের খবরে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসছে। এদিকে পুলিশ নিহত সবুর আলীর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হবিগঞ্জ মর্গে প্রেরন করেছে। ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে দুপুরে রোমন আহমেদ নামের যুবককে দুপুরে পুলিশ গ্রেফতার করেছে । এঘটনায় এলাকায় পক্ষ-বিপক্ষের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন রাখতে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে ।

Sharing is caring!

Loading...
Open