জুড়ীতে কলেজে ডাকাতি, নারায়নগঞ্জ থেকে ৩ ডাকাত গ্রেপ্তার

20788ডেস্ক রিপোর্টঃ মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলার শাহ নিমাত্রা সাগরনাল ফুলতলা কলেজের ডাকাতি হওয়া মালামালসহ তিন ডাকাতকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। জুড়ী থানা পুলিশ বৃহস্পতিবার (২৮ এপ্রিল) রাতে নারায়নগঞ্জ থেকে ফতুল্লাহ মডেল থানা পুলিশের সহায়তায় এদের গ্রেপ্তার করেছে।
গ্রেপ্তারকৃত ডাকাতরা হচ্ছে-জুড়ী উপজেলার ফুলতলা ইউপির বিরইনতলা গ্রামের মৃত আরশাদ আলীর ছেলে ময়না মিয়া (৩০) ও কামাল মিয়া (৩৫) এবং নারায়নগঞ্জ জেলার চাষারা চম্পাগড় গ্রামের জালাল আহমদের ছেলে মঞ্জু মিয়া (৩০)। পুলিশ তাদের নিকট হতে ডাকাতি হওয়া কলেজের একটি মাল্টিমিডিয়া প্রজেক্টের ও দুইটি মোবাইল ফোনসেট উদ্ধার করেছে।
জুড়ী থানা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত ১২ এপ্রিল রাতে জুড়ী শাহ নিমাত্রা সাগরনাল ফুলতলা কলেজের নৈশ প্রহরীকে বেঁধে রেখে ডাকাতরা কম্পিউটার ল্যাবে প্রবেশ করে নগদ ১৮ হাজার টাকা, একটি মাল্টিমিডিয়া প্রজেক্টর, মোবাইল ফোনসেটসহ প্রায় দুই লাখ টাকার মালামাল লুট করে।
এঘটনায় পরদিন কলেজের অধ্যক্ষ জহির উদ্দিন জুড়ী থানায় একটি দস্যুতা মামলা করেন। মামলার পর মোবাইল ট্র্যাকিং প্রযুক্তির মাধ্যমে জুড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ হামিদুর রহমান ও এসআই ইব্রাহিম আলী খানের নেতৃত্বে নারায়নগঞ্জের ফতুল্লাহ মডেল থানা পুলিশের সহায়তায় বৃহস্পতিবার রাতে তিন ডাকাতকে গ্রেফতার করা হয়। পরে তাদের দেয়া তথ্যমতে ডাকাতি হওয়া মালামাল উদ্ধার করে পুলিশ।
পুলিশ জানিয়েছে, গ্রেপ্তারকৃত ময়না ও কামাল মিয়া আপন ভাই। এদের নামে জুড়ী থানায় একাধিক ডাকাতি মামলা রয়েছে। এছাড়া এসব মামলায় তাদের বিরুদ্ধে আদালতের গ্রেপ্তারী পরোয়ানা আছে।
জুড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ হামিদুর রহমান তিন ডাকাতকে গ্রেফতারের সত্যতা নিশ্চিত করে (২৯ এপ্রিল) বলেন, ‘ডাকাতি করে তারা নারায়নগঞ্জে পালিয়ে যায়। সেখানে তারা রিকশা চালাতো।’

Sharing is caring!

Loading...
Open