বিএনপির সম্পাদকীয় পদে ২১ জনের নাম ঘোষণা, ১৮ নতুন মুখ

bnp leadersডেস্ক রিপোর্টঃ দলের পুনর্গঠিত কমিটির একজন সাংগঠনিক সম্পাদক ও ২০ সহ-সাংগঠনিক সম্পাদকের নাম ঘোষণা করেছে বিএনপি। গতকাল বিকালে দলের নয়াপল্টন কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রিজভী আহমেদ এ নাম ঘোষণা করেন। সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া দলের ষষ্ঠ কাউন্সিলে প্রাপ্ত দায়িত্ব ও ক্ষমতাবলে সাংগঠনিক ও সহসাংগঠনিক সম্পাদক পদে এ মনোনয়ন দিয়েছেন।
উল্লেখ্য, কাউন্সিলের পর প্রথম ধাপে মহাসচিবসহ ৩ জন, দ্বিতীয় ধাপে যুগ্ম মহাসচিব ও সাংগঠনিক সম্পাদকসহ ১৬ জনের পর তৃতীয় ধাপে সহ-সাংগঠনিক সম্পাদকদের নাম ঘোষণা করা হলো। সাংগঠনিকভাবে কুমিল্লা, ময়মনসিংহ ও ফরিদপুর বিভাগকে এবারই প্রথম স্বীকৃতি দিয়ে তিন বিভাগের সাংগঠনিক কমিটি দিয়েছে বিএনপি। এছাড়া কাউন্সিলে সংশোধিত গঠনতন্ত্র অনুযায়ী প্রথমবারের মতো প্রতিটি বিভাগেই দুইজন করে সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মনোনীত করা হয়েছে। যার মধ্যে চমক হিসেবে রয়েছে কয়েকটি নাম। কুমিল্লা বিভাগের সাংগঠনিক সম্পাদক হিসেবে সাবেক এমপি কর্নেল (অব.) আনোয়ারুল আজিমের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। তিনি আগে জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ছিলেন। এর আগে কুমিল্লা ছাড়া অন্য সব বিভাগে সাংগঠনিক সম্পাদকদের নাম ঘোষণা করা হয়েছিল। অন্যদিকে ২০ জন সহ-সাংগঠনিক সম্পাদকের মধ্যে পুরোনো পদে বহাল রয়েছেন দুইজন। তারা হলেন- রাজশাহী বিভাগের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক সাবেক এমপি আবদুল মমিন তালুকদার খোকা ও ঢাকা বিভাগের অ্যাডভোকেট আবদুস সালাম আজাদ। অবশ্যই ঢাকা বিভাগের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক এমপি নাসিরউদ্দিন আহম্মেদ পিন্টু কারাগারে মৃত্যুবরণের পর যুবদলের সিনিয়র সভাপতি আবদুস সালাম আজাদকে পদোন্নতি দিয়ে ঢাকা বিভাগের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক পদে পদোন্নতি দেয়া হয়েছিল। পুনর্গঠিত কমিটির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদকদের মধ্যে ১৮ জনই নতুন মুখ। সহ-সাংগঠনিক সম্পাদকরা হলেন- ঢাকা বিভাগে অ্যাডভোকেট আবদুস সালাম আজাদ ও ছাত্রদলের সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি শহীদুল ইসলাম বাবুল, চট্টগ্রাম বিভাগে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক এজিএস মাহবুবুর রহমান শামীম ও যুবদল কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি আবুল হাসেম বক্কর, রাজশাহী বিভাগে সাবেক এমপি আবদুল মোমিন তালুকদার খোকা ও রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক সিনেট সদস্য শাহীন শওকত, খুলনা বিভাগে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য তরিকুল ইসলামের ছেলে অনিন্দ্য ইসলাম অমিত ও বিগত কমিটির ধর্মবিষয়ক সহ-সম্পাদক জয়ন্ত কুমার কুণ্ডু, বরিশাল বিভাগে বরিশাল উত্তর জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আ ক ন কুদ্দুছুর রহমান ও বিএম কলেজের সাবেক ভিপি মাহবুবুল হক নান্নু, সিলেট বিভাগে সাবেক এমপি দিলদার হোসেন সেলিম ও সাবেক এমপি এবং সুনামগঞ্জ জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক কলিম উদ্দিন আহমেদ মিলন, রংপুর বিভাগে নীলফামারী বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শামসুজ্জামান জামান ও দিনাজপুর পৌর মেয়র সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম, ময়মনসিংহ বিভাগে শরীফুল আলম ও জামালপুর জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ওয়ারেছ আলী মামুন, কুমিল্লা বিভাগে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মোস্তাক হোসেন ও মৎস্যজীবী দলের সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুল আউয়াল খান, ফরিদপুর বিভাগে সাবেক এমপি আলী নেওয়াজ মাহমুদ খৈয়াম ও যুবদল কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি সেলিমুজ্জামান সেলিম। পুনর্গঠিত কমিটির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক পদে প্রাধান্য পেয়েছেন ছাত্রদলের সাবেক কেন্দ্রীয় নেতারা। তারা হলেন- ঢাকার শহীদুল ইসলাম বাবুল, চট্টগ্রামের মাহবুবুর রহমান শামীম, রাজশাহীর শাহীন শওকত, খুলনার জয়ন্ত কুমার কুণ্ডু, বরিশালের মাহবুবুল হক নান্নু, কুমিল্লার আবদুল আউয়াল খান ও ফরিদপুরের সেলিমুজ্জামান সেলিম। যাদের বেশির ভাগই যুবদলসহ অন্যান্য অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠন থেকে প্রথমবারের মতো বিএনপির জাতীয় কমিটির পদোন্নতি পেয়েছেন। তবে জেলার রাজনীতিতে কেন্দ্রীয় রাজনীতিতে পদোন্নতি পেয়েছেন কয়েকজন। তারা হলেন- সিলেটের দিলদার হোসেন সেলিম, সুনামগঞ্জের কলিমউদ্দিন আহমেদ মিলন, রাজবাড়ির আলী নেওয়াজ মাহমুদ খৈয়াম, জামালপুরের ওয়ারেছ আলী মামুন, কিশোরগঞ্জের শরীফুল ইসলাম, নীলফামারীর শামসুজ্জামান, দিনাজপুরের সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম, বরিশালের আকন কুদ্দুছুর রহমান ও কুমিল্লার মোস্তাক হোসেন। সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব মজিবুর রহমান সরোয়ার, খায়রুল কবির খোকন, সাংগঠনিক সম্পাদক বিলকিস জাহান শিরিন, সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স, গণশিক্ষাবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট সানাউল্লাহ মিয়া প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। (মানবজমিন)

Sharing is caring!

Loading...
Open