টি-টোয়েন্টির চ্যাম্পিয়ন ওয়েস্ট ইন্ডিজ

Windies-120160403170623স্পোর্টস ডেস্ক :: চার বলে টানা চারটি ছক্কা। নিশ্চিত হেরে যাওয়া ম্যাচটি একাই শেষ ওভারে বের করে নিয়ে আসলেন কার্লোস ব্র্যাথওয়েট। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে অবিশ্বাস্য এবং অসাধারণ এক জয় ওয়েস্ট ইন্ডিজের। ৪ উইকেটে ইংলিশদের হারিয়ে দ্বিতীয়বারেরমত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের শিরোপা জিতে নিল ক্যারিবিয়ানরা।

ফাইনলের মতই হলো ফাইনাল। শেষ ওভারের আগ পর্যন্তও বলা যায়নি আসলে কে জিতবে। নিঃসন্দেহে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের সেরা দুটি দল মুখোমুখি হয়েছিল ফাইনালে। টান টান উত্তেজনা। কে জিতবে কেউ বলতে পারে না। এমনকি একটি ম্যাচে ক্যারিবীয়দের জন্য শেষ ওভারে প্রয়োজন ১৯ রান। বোলার বেন স্টোকস। ব্যাটসম্যান কার্লোস ব্র্যাথওয়েট এবং মারলন স্যামুয়েলস। স্ট্রাইবে ব্র্যাথওয়েট।

প্রথম বলেই বেন স্টোকসকে লেগ সাইড দিয়ে ছক্কা। দ্বিতীয় বলে লং অন দিয়ে আরেকটা বিশাল ছক্কা। রানের ব্যবধান কমে এসে দাঁড়াল ৪ বলে ৭-এ। তৃতীয় বলে আবারও ছক্কা। এবার লং অফের ওপর দিয়ে বিশাল ছক্কা। তাতেই জয় নিশ্চিত ওয়েস্ট ইন্ডিজের। বাকি আর এক রান। বল বাকি তিনটি। কিন্তু কার্লোস ব্র্যাথওয়েটের ওপর যেন তখন অসুর ভর করেছে। সুতরাং, এক রান নিয়ে হাত নষ্ট করার কী প্রয়োজন। চতুর্থ বলেও তাই বিশাল এক ছক্কা।

কলকাতার ইডেন গার্ডেন্স যেন তখন ছক্কাময়। কার্লোসের শেষ ছক্কা গ্যালারিতে আছড়ে পড়ার আগেই ভোঁ দৌড় স্যামি-গেইলদের। মাঠের মধ্যেই উল্লাসে ফেটে পড়লেন ক্যরিবীয়রা। ওয়েস্ট ইন্ডিজের পুরুষ ক্রিকেটারদের সঙ্গে তখন নারী ক্রিকেটাররাও মেতে উঠলেন আনন্দ আর উল্লাসে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্যালিপসো সুরে মাতোয়ারা তখন পুরো ইডেন গার্ডেন্স।

বিকেলেই অস্ট্রেলিয়ারে রাজত্ব ভেঙে নারী ক্রিকেটের শিরোপা জিতেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজের নারী ক্রিকেট দল। এ বছরই বাংলাদেশ থেকে অনুর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপের শিরোপা জিতে নিয়েছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের যুবারা। বছরটা যেন ক্যারিবিয়ান বিপ্লবের বছরই। তিনটি বিশ্বকাপ উঠলো তাদের ঘরে।

কলকাতার ইডেন গার্ডেনের উইকেট যে সত্যি সত্যি প্রথম থেকে রহস্যময় আচরণ করছিল তার প্রমাণ পাওয়া যাচ্ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের ব্যাটিংয়ের শুরু থেকে। ১৫৫ রান যে ক্যারিবীয়দের জন্য বেশ কঠিন হবে তা বোঝাই যাচ্ছিল। কিন্তু মারলন স্যমুয়েলসের অতি মানবীয় ৬৬ বলে ৮২ এবং কার্লোস ব্র্যাথওয়েটের ১০ বলে ৩৪ রানের ওপর ভর করে ২ বল হাতে রেখেই শ্বাসরূদ্ধকর জয়টি পেয়ে গেলো ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

১৫৬ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই বিপর্যয়ে পড়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ১১ রান তুলতেই দলের সেরা তিন ব্যাটসম্যান ক্রিস গেইল, চালর্স জনসন এবং লেন্ডল সিমন্সকে হারিয়েছে ক্যারিবীয়রা। ডেভিড উইলি আর জো রুটের সাঁড়াসি আক্রমনের মুখে কোণঠাসা এখন ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

প্রথম ওভারেই দলীয় ১ রানের মাথায় আউট হন জনসন চার্লস। গেইল নিজের প্রথম বলে একটি বাউন্ডারি মারলেও দ্বিতীয় বলে ছক্কা মারতে গিয়ে জো রুটের বলে বেন স্টোকসের হাতে ক্যাচ দিয়ে আউট হয়ে ফেরেন।

লেন্ডল সিমন্স ব্যাট করতে এসে প্রথম বলেই কোন রান না করে ডেভিড উইলির বলে এলবিডব্লিউ আউট হয়ে ফিরে যান প্যাভিলিয়নে। এরপর ডোয়াইন ব্র্যাভোকে নিয়ে ৭৫ রানের জুটি গড়েন মারলন স্যামুয়েলস। ২৭ বলে ২৫ রান করে আউট হন ব্র্যাভো। এরই মাঝে একবার মারলন স্যামুয়েলসকেও আউট দেয়া হয়েছিল কটবিহাইন্ডের।

তবে পরে রিপ্লেতে দেখা যায়, উইকেটরক্ষক জস বাটলার ড্রপ ক্যাচ ধরেছিলেন। সেই স্যামুয়েলসই শেষ পর্যন্ত ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ম্যাচে ধরে রেখেছিলেন। আর শেষ মুহূর্তে দুর্দান্ত ফিনিশিং দিলেন কার্লোস ব্র্যাথওয়েট। মাঝে ১ রান করে আউট হয়েছিলেন আন্দ্রে রাসেল এবং ২ রান করে আউট হন ড্যারেন স্যামি।

Sharing is caring!

Loading...
Open